দেশহোম পেজ

১০ শতাংশ সাধারণ সংরক্ষণ বিল সংশোধনের দাবিতে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন

 

বাংলা hunt ডেস্ক : বুধবার বিনা বাধায় রাজ্যসভায় পাশ হয়ে যায় ১০% সাধারণ সংরক্ষণ বিল। কিন্তু এই বিলকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করলেন এক ব্যক্তি। কেননা সাধারণ গরিব, আর্থিক ভাবে পিছিয়ে পড়া অংশের মানুষের সরকারি চাকরি ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ভর্তিতে ১০ শতাংশ সংরক্ষণ দিতে আনা সংবিধান সংশোধনীর দাবিতে পিটিশন পেশ করেছেন ইউথ ফর ইকুয়ালিটি নামে একটি সংগঠনের প্রতিনিধিরা ও ডাঃ কৌশল কান্ত নামে একজন। পিটিশনে তাঁরা সওয়াল করেছেন যে , সুপ্রিম কোর্ট সর্বোচ্চ ৫০ শতাংশ সংরক্ষণের যে সীমা বেঁধে দিয়েছে, তাকে লঙ্ঘন করছে এই বিল, কেননা আর্থিক মাপকাঠিতে সংরক্ষণ শুধু সীমাবদ্ধ রাখা যায় না। আর্থিক মাপকাঠিই সংরক্ষণের একমাত্র ভিত্তি হতে পারে না বলেও তাঁদের অভিমত। রাজ্যসভায় পাস হয়ে গেল ঐতিহাসিক সংরক্ষণ বিল।

 

প্রসঙ্গত, রাজ্যসভায় বুধবার সংবিধান সংশোধনী বিলে ১৬৫টি ভোটে পাশ হয়ে যায় বিলটি। বিপক্ষে পড়েছে মাত্র ৭টি ভোট। ওই বিল পাশের ফলে উচ্চবর্ণের আর্থিকভাবে দুর্বলরা এবার পেতে চলেছেন ১০ শতাংশ সংরক্ষণের সুবিধা। জানা গিয়েছে, আট লক্ষের কম রোজগার আছে, এমন উচ্চবর্ণের নাগরিকরাই ওই সংরক্ষণের সুবিধা পাবেন। ইতিপূর্বে মঙ্গলবার লোকসভায় ওই সংক্রান্ত বিল পাস হয়েছে। লোকসভায় ৩২৩টি ভোট পেয়ে পাস হয় সেই বিল।রাজ্যসভায় বিলটি পাশের পর তা যাবে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের কাছে। তাঁর স্বাক্ষরের পর আইনে পরিণত হবে নতুন সংবিধান সংশোধনী। কিন্তু এই সংশোধনী বিল নিয়ে সুপ্রিমকোর্টে পিটিশন দাখিল হওয়ায় এই বিল সম্পর্কে প্রশ্ন চিহ্ন দেখা দিয়েছে। দেশের সর্ব্বোচ্চ আদালত এবার কি রায় দেয় সেটাই দেখার।

Leave a Reply

Close
Close