টাইমলাইনভারত

‘আমার ছেলের বড় বিপদ, ৫-৬ মাস একটু সামলে রাখুন। আমি টাকা পাঠাব’, চিঠি সহ ব্যাগে মিলল ৫ মাসের শিশু

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ মঙ্গলবার সকালে আমেঠি (amethi) জেলার মুন্সীগঞ্জ থানা এলাকার ত্রিলোকপুর গ্রামের বাসিন্দা আনন্দ ওঝার বাড়ির সামনে একটি ব্যাগ পাওয়া যায়। সকালে পথ চলতি মানুষের ওই ব্যাগটির দিকে আকর্ষণ গেলে, তারা ওই ব্যাগ থেকে একটি বাচ্চার কান্নার শব্দ শুনতে পান।

ব্যাগ থেকে মেলে ৫ মাসের শিশু
আমেঠিতে (amethi) বাচ্চার কান্নার শব্দে আশাপাশের লোকজন জড়ো হলে আনন্দ ওঝার পরিবারের লোকজন ব্যাগটি খুলে দেখে তার মধ্যে একটি শিশু রয়েছে। শিশুটির বয়স আনুমানিক ৫-৬ মাস হবে। সেইসঙ্গে ব্যাগে ইংরাজিতে একটি চিঠিও লেখা ছিল। চিঠির বিষয়বস্তু ছিল, ‘আমার ছেলেকে ৫-৬ মাস একটু আপনারা সামলে রাখুন। আমি প্রতি মাসে টাকা পাঠাব। আমার ছেলের বড় বিপদ’।

চিঠিও পাওয়া যায় ব্যাগের ভেতর
সম্পূর্ণ চিঠিতে লেখা ছিল, ‘এ আমার ছেলে। ওকে আপনার কাছে ৫-৬ মাসের জন্য রাখছি। আমি আপনার বিষয়ে অনেক কিছু শুনেছি। আপনি অত্যন্ত সজ্জন ব্যক্তি। ওর বড় বিপদ, তাই আপনার কাছেই আমার ছেলেকে রাখছি। আমার কিছু সমস্যা আছে এবং ওর মা নেই। তাই আপনার কাছে হাত জোড় করে অনুরোধ করছি, আমার বাচ্চাকে দেখে রাখবেন। পরিস্থিতি ঠিক হয়ে গেলে, আমি এসে ওকে নিয়ে যাব। চিন্তা করবেন না, বাচ্চা ব্রাহ্মণ পরিবারের’।

চিঠিতে আরও লেখা ছিল, ‘আমি যে আপনার কাছে আমার ছেলেকে রেখে গেছি, একথা দয়াকরে কাউকে বলবেন না। নাহলে সেটা আমার জন্যও বিপদ হয়ে দাঁড়াবে। ও আমার একমাত্র সন্তান। আমি প্রতি মাসে ৫০০০ করে টাকা প্রতি মাসে আপনাকে পাঠিয়ে দেব। প্রয়োজন হলে আরও দেব। আপনি বরং বলবেন, ও আপনার কোন বন্ধুর ছেলে। যার মা কোমায় রয়েছে। আপনার উপর পূর্ণ আস্থা আছে আমার। কোন সমস্যা হলে, আমি কোনদিন আপনাকে দোষ দেব না’।

পুলিশ তদন্ত করছে
বাচ্চাটিকে পাওয়ার পর তৎক্ষণাৎ পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ আনন্দের বাড়িতে উপস্থিত হয়। SO মিথিললেস সিং বাচ্চাটিকে পাওয়ার বিষয়ে স্বীকার করে জানিয়েছেন, বর্তমানে বাচ্চাটি আনন্দের পরিবারের কাছে রয়েছে। তবে কারা, কোন পরিস্থিতিতে বাচ্চাটিকে সেখানে রেখে দিয়ে গেছে, সেবিষয়ে তদন্ত করা হবে।

Back to top button