বঙ্গহোম পেজ

সুজনকে আইনি নোটিশ অভিষেকের আইনজীবীর, পাল্টা তদন্তের দাবী বাম নেতার

 

দক্ষিণ ২৪ পরগণাঃ কলকাতা বিমান বন্দরে বেআইনি সোনা বহনের অভিযোগ উঠেছে ডায়মন্ড হারবারের বিদায়ী সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রী রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে। তাকে হেনস্থা করার অভিযোগ ও করেছেন অভিষেক। এবার প্রভাব খাটিয়ে বিমান বন্দর থেকে স্ত্রীকে বের করে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ ও উঠেছে অভিষেকের বিরুদ্ধে। গত ১৬ই মার্চ রাতে কলকাতা বিমান বন্দরে ঘটা এই ঘটনা সম্পর্কে সোশ্যাল মিডিয়া টুইটারে টুইট করেছিলেন সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তী। শনিবার সেই টুইটে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় ও তার পরিবারের মানহানি হয়েছে বলে একটি আইনি চিঠি পান সুজন বাবু। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের আইনজীবী সঞ্জয় বসু ঐ চিঠিতে সুজন চক্রবর্তীকে অবিলম্বে টুইট তুলে নিতে বলেন ও এ বিষয়ে আটচল্লিশ ঘণ্টার মধ্যে ক্ষমা চাইতে ও বলা হয় সেই চিঠিতে। এই বিষয় নিয়ে রবিবার বিকেলে দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলা সিপিএমের পার্টি অফিস বারুইপুরে একটি সাংবাদিক সম্মেলন করেন সুজন চক্রবর্তী ও যাদবপুর লোকসভা কেন্দ্রের বাম প্রার্থী বিকাশ রঞ্জন ভট্টাচার্য।

 

এদিনের সাংবাদিক সম্মেলনে সুজন বাবু বলেন, “ আমি আমার করা টুইট থেকে এক বিন্দুও সরছি না। যাদের মান আছে তারা মানহানির কথা বলেন, কিন্তু যাদের মানই নেই তারা কিভাবে সবসময় মানহানির কথা বলেন? ভবিষ্যতে যেন আর মানহানির কথা না বলেন। এর আগেও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় ও তার পরিবারের তরফ থেকে এই রকম মানহানির মামলার নোটিশ পেয়েছি। কিন্তু জানিনা কোন এক অদৃশ্য কারণে কিছুদিন বাদেই তা ভেনিশ হয়ে যায়”।

এদিন সুজন বাবুর পাশাপাশি বিকাশ রঞ্জন ভট্টাচার্য ও বলেন, “ রাজ্য ও কেন্দ্র সমঝোতা চলছে। কেন্দ্রের কাস্টম অফিসাররা এক মহিলাকে বেআইনি সোনা সহ ধরলেন, আর রাজ্যের পুলিশ গিয়ে তাকে ছাড়িয়ে নিয়ে এলেন? এবার অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় কাস্টম অফিসারদের বিরুদ্ধে ঘুষ চাওয়ার অভিযোগ তুলেছেন। তাহলে কি সত্যিই কাস্টম অফিসাররা ঘুষ নেন? আমরা এসব কিছুরই তদন্ত চাই। আমরা চাই সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে একটি টিম তৈরি করে পুরো ঘটনার তদন্ত হোক। আর সুজন টুইট প্রত্যাহার করবেন না তাতে ওরা যদি আইনি পদক্ষেপ নেয় নিক। আমরা চাই ওরা আইনি পদক্ষেপ নিক”।

Leave a Reply

Close
Close