টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গ

“আমার ফেস্টুন ব্যানার ছিঁড়ে দিলেও আমি সমস্যার সমাধান করব” : আলুওয়ালিয়া

 

নিজস্ব সংবাদদাতা,পূর্ব বর্ধমান,১৪ জুনঃ
‘লোকসভা নির্বাচনের সময় যারা আমার ফেস্টুন ব্যানার লাগাতে দেয়নি ,এই সভা ছেড়ে যাওয়ার সময় তাদের জানাবেন ,আমি তাদের সমস্যার সমাধান করার চেষ্টা করব।শুক্রবার বর্ধমান রেলওয়ে স্টেশন চত্ত্বরে ভারতীয় জনতা পার্টির সভায় একথা বলেন বর্ধমান দুর্গাপুর লোকসভা কেন্দ্রের প্রার্থী সুরিন্দর সিং আলুওয়ালিয়া, তিনি আরো বলেন, দিদি কাঁকর পাথর মেশানো লাড্ডু পাঠিয়ে মোদিজীর দাঁত ভাঙতে গিয়ে নিজের দাঁতই ভেঙ্গে ফেলেছেন ,আর সেই ভাঙ্গা দাঁত নিয়ে ডাক্তারদের বিরোধিতা করছেন।নির্বাচনের আগে দিদি বলতেন 42 এ 42 পাব ,কিন্তু 2019 লোকসভা নির্বাচনে মানুষ এর আশীর্বাদে বিজেপি র উত্থান দিদি মেনে নিতে পারছেন না,, একপ্রকার পাগল হয়ে গেছেন উল্টোপাল্টা বকছেন। এদিনের সভায় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ,বর্ধমান জেলা বিজেপির সভাপতি সন্দীপ নন্দী,বিজেপি নেতা আইনুল হক,বাবলু মুখার্জি,সুজিত পাল,অঞ্জন মুখার্জি প্রমূখ ।

 

এদিনের সভায় স্টেশন সংলগ্ন এলাকায় এক ব্যাপক উন্মাদনা সৃষ্টি হয় ! এককালের শ্রমিক নেতা বিশ্বজিত সেন ওরফে খোকন সেন এর নেতৃত্বে প্রায় কয়েক হাজার অন্য রাজনীতি দল থেকে আসা মানুষ বিজেপিতে যোগদান করেন । এ প্রসঙ্গে বিজেপির রাজ্য নেতা চন্দ্র নাথ মুখার্জী ওরফে বাবলু মুখার্জি বলেন সিপিএম তৃণমূল সবার ভোটে আমরা আজকে জয়ী,তাই দায়বদ্ধতা থেকেই যায় প্রত্যেকের নিরাপত্তার ।

আমরা চাই কোন হিংসা হানাহানি না হোক ।এদিকে আজকের সবার কেন্দ্রবিন্দু বিশ্বজিত সেন ওরফে খোকন সেন জানান, আমরা আজ বিজেপিতে যোগদান করলাম , এই দলের নীতি আদর্শ মেনে চলবো,হিংসা হানাহানি ঊর্ধ্বে সবকা সাথ ,সবকা বিকাশ ,সবকা বিশ্বাস ,মোদিজীর এই শ্লোগানে অনুপ্রাণিত আমরা, আগামী দিনে দলের নির্দেশ অনুযায়ী চলব।

Back to top button
Close