টাইমলাইনখেলাক্রিকেট

ভারতের সিনিয়র ক্রিকেট দলের নির্বাচক হতে চলেছেন ধোনির ২০০৭ T-20 বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্ক: ২০২২ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের কাছে লজ্জাজনক হারের পর কাল একটি বড় সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিসিসিআই। বিসিসিআই শুক্রবার চেতন শর্মার নেতৃত্বে গঠন হওয়া সিনিয়র পুরুষ দলের জাতীয় নির্বাচক কমিটির প্রত্যেককে সরিয়ে দিয়েছে। টানা দুটি বিশ্বকাপে হতাশাজনক পারফরম্যান্সের পর এটা প্রত্যাশিতই ছিল। সেই সঙ্গে পরবর্তী নির্বাচক কমিটিতে যোগ দেওয়ার জন্য আবেদন করতে অনুরোধ জানিয়েছে বিসিসিআই।

বিসিসিআইয়ের সেই বিবৃতিতে এটি স্পষ্ট করে দেওয়া হয়েছে যে, “কোনও ব্যক্তি যিনি দেশের কোনও ক্রিকেট কমিটির বর্তমান সদস্য হিসেবে মোট ৫ বছর ধরে দায়িত্ব পালন করছেন, তারা পুরুষদের নির্বাচন কমিটির সদস্য হওয়ার যোগ্য হবেন না। এই মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন হিসাবে ২৮ নভেম্বর দিনটিকে নির্ধারিত করা হয়েছে। সেদিন সন্ধ্যা ৬ টার মধ্যে ইচ্ছুকদের আবেদনপত্র জমা দিতে হবে।

এছাড়া এই পদের যোগ্যতাও বিসিসিআই নির্ধারণ করে জানিয়েছে যে জাতীয় নির্বাচক হিসাবে ৫ টি পদ আপাতত খালি রয়েছে। তবে সেই পদের জন্য আবেদনকারী ব্যক্তিকে দেশের জার্সিতে কমপক্ষে ৭টি টেস্ট ম্যাচ অথবা ৩০টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচ এবং ১০টি ওয়ানডে অথবা ২০টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচ খেলতে হবে। সদ্য অবসর নিয়েছেন এমন কেউ এই পদের জন্য আবেদন করতে পারবেন না। আবেদনকারীকে অত্যন্ত পাঁচ বছর আগে জাতীয় দল থেকে অবসর নেওয়া ব্যক্তি হতে হবে।

Ajit Agarkar,Team India,BCCI,Indian Team Selector

সূত্র মারফত পাওয়া খবর অনুসারে, ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড (বিসিসিআই) নতুন সিনিয়র পুরুষ দলের নির্বাচক কমিটি বাছাই করতে প্রস্তুত এবং তারা অজিত আগরকার এবং লক্ষ্মণ শিবরামকৃষ্ণনের মতো প্রার্থীদের এই পদের জন্য লড়াইয়ে অংশ হওয়ার গুজব ইতিমধ্যেই প্রকাশ্যে আসতে শুরু করেছে।

অজিত আগরকার এই পদের লড়াইয়ে অনেকটাই এগিয়ে থাকছেন। তিনি ক্রিকেট ছেড়েছেন খুব বেশি বছর হয়নি। বর্তমানে তিনি আইপিএলের একটি ফ্র‍্যাঞ্চাইদের সঙ্গে যুক্ত রয়েছেন। ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটের সম্পর্কে ভালো জ্ঞান রয়েছে তার। নিজে টেস্ট ওডিআই এবং টি-টোয়েন্টি তিন ফরম্যাটেই ভারতের হয়ে ক্রিকেট খেলেছেন। তবে বিসিসিআইয়ের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানতে আরও দুটো সপ্তাহ অপেক্ষা করতে হবে সকলকে।

Related Articles