fbpx
টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গ

আমি স্পষ্ট করে বলছি বাংলায় এনআরসি হবেই, রাজ্যকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে বিস্ফোরক অমিত শাহ

বাংলা হান্ট ডেস্ক : পশ্চিমবঙ্গে কোনও মতেই এনআরসি চালু করতে দেওয়া হবে না এমনটাই হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পাশাপাশি তাঁর জীবদ্দশায় শেষ অবধি এনআরসি র বিরুদ্ধে কথা বলে যাবেন বলে জানিয়েছিলেন মমতা এবং লড়াই করার কথাও জানিয়েছিলেন। এমনকী অসমের জাতীয় নাগরিক পঞ্জির চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশিত হওয়ার পর প্রতিবাদে রাস্তায় হেঁটেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তবে এবার পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি চালু করার ব্যাপারে 100 শতাংশ হুঁশিয়ারি দিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

2014 সালের ডিসেম্বরের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গে আসা সমস্ত উদ্বাস্তুদের মধ্যে হিন্দুরা অবশ্যই নাগরিকত্ব পাবেন বলেও জানিয়ে দেন অমিত শাহ। তবে বুধবার রাজ্যসভায় নাগরিকত্ব সংশোধন বিল পাসের আগে জাতীয় নাগরিক পঞ্জি নিয়ে আলোচনা শুরু হয় আর এই আলোচনায় রাজ্যসভার বিজেপি সাংসদ স্বপন দাশগুপ্ত নাম না করে এক রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী এনআরসি চালু করতে দেবেন না বলে দাবি জানিয়েছিলেন তা উনি কি আটকাতে পারবেন? এই প্রশ্ন তোলেন

ঠিক সেই প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম না নেয়ার জন্য স্বপন দাশগুপ্তকে ভদ্রতা দেখাচ্ছেন বলে জানান অমিত শাহ পাশাপাশি তিনি স্পষ্ট করে জানান বাংলা সহ গোটা দেশে এনআরসি চালু করা হবে। নেই পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভা উপনির্বাচনে তৃণমূল সরকারের হ্যাটট্রিক ফলাফল করার পর এ বার বিজেপি কোমর বেঁধে মাঠে পেয়েছে তৃণমূলের ভোটব্যাঙ্কে ভাঙন ধরাতে, তাই তো কোনো রকম শর্ত ছাড়াই পশ্চিমবঙ্গে উদ্বাস্তুদের হিন্দুত্বের অধিকার দেওয়া হবে বলে সরাসরি জানিয়েছেন অমিত শাহ।

এমনিতেই নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল নিয়ে ঠিক যেমন বিরোধিতা শুরু হয়েছে এনআরসি নিয়ে গোটা পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে এনআরসি বিরোধী আন্দোলন শুরু হয়েছিল। যদিও কেন্দ্রীয় সরকার নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলে হিন্দুদের অধিকার দেওয়া হবে এবং জাতীয় নাগরিক পঞ্জিতে কিন্তু সেই প্রাধান্য দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে কিন্তু তা সত্ত্বেও তাঁর যে কোনও ভাবেই এনআরসি চালু করা যাবে না বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন মমতা।

Back to top button
Close
Close