টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

ভোটে হেরেও দলীয় কর্মীদের পাশে অভিনেত্রী অঞ্জনা বসু, করছেন খাবারের বন্দোবস্ত

.বাংলা হান্ট ডেস্কঃ শেষ হয়েছে বাংলার ঐতিহাসিক বিধানসভা নির্বাচন। দুশো আসনের দাবি করলেও শেষ পর্যন্ত মাত্র ৭৭ টি আসন নিয়ে নিন শান্ত থাকতে হয়েছে রাজ্যের প্রধান বিরোধী দল ভারতীয় জনতা পার্টিকে। প্রবল সবুজ ঝরে সোনারপুর দক্ষিণ থেকে পরাজিত হয়েছেন বিজেপি প্রার্থী অভিনেত্রী অঞ্জনা বসুও। তৃণমূলের তারকা প্রার্থী লাভলী মৈত্রের কাছে প্রায় ২৬ হাজারের বেশি ভোটে হার মানতে হয়েছে তাকে। তবে নির্বাচনে হার-জিত রয়েছেই, এ কথা মাথায় রেখেই এবার তারকা প্রার্থীদের সম্পর্কে বেশ কিছু ভ্রান্ত ধারণা ভেঙে দিলেন অঞ্জনা বসু। তারকা প্রার্থীদের ভোটের পর কেন্দ্রে দেখা যায় না এই অভিযোগ বহুদিনের । কিন্তু সোনারপুর দক্ষিণের মানুষকে এ কথা বলার সুযোগ দিলেন না অঞ্জনা।এদিন সোনারপুর গিয়ে বিজেপি কর্মীদের পাশে দাঁড়ান তিনি।

নির্বাচনের ফল প্রকাশের পর এই ভোট-পরবর্তী হিংসায় উত্তাল হয়ে উঠেছিল বাংলার বিভিন্ন প্রান্ত। বারবার সংঘর্ষের কেন্দ্রবিন্দুতে উঠে আসছিল তৃণমূল এবং বিজেপি কর্মীরা। ব্যাতিক্রম হয়নি তার বিধানসভা কেন্দ্রেও। ফল প্রকাশের পরেই কর্মহীন হয়ে পড়েছেন বহু বিজেপি কর্মী সমর্থক। তৃণমূলের দুষ্কৃতীদের তরফে ঘরবাড়ি ভাঙচুর করার অভিযোগও উঠেছে। কার্যত এখন এ অঞ্চলে গৃহবন্দী ভারতীয় জনতা পার্টির সমর্থকরা। আজ তাদেরই আরেকবার উজ্জীবিত করতে পাশে দাঁড়ালেন অঞ্জনা। নিজে দাঁড়িয়ে থেকে খাদ্য সামগ্রী তুলে দিলেন, আক্রান্ত কর্মী-সমর্থকদের হাতে। জানালেন এই অবস্থাতেও তাদের পাশে রয়েছে দল। বিজেপি নেত্রীর এগিয়ে আসায় খুশি কর্মী-সমর্থকরাও। এদিন নেত্রীকে কাছে পেয়ে নিজেদের অভাব-অভিযোগ এবং ক্ষোভের কথা জানান দলীয় কর্মীরা।

নিজে হেরে গেলেও বাংলার উন্নয়নের হাতে হাত রেখে কাজ করতে চান তিনি। এদিন বিরোধীপক্ষের নেত্রী সম্পর্কেও সৌজন্যে প্রকাশ করেন অঞ্জনা। তিনি জানান নির্বাচনী লড়াই শেষ হয়েছে। এখন দরকার একযোগে মানুষের জন্য কাজ করা। সেই সূত্রে তার পক্ষে যতখানি সাহায্য করা সম্ভব তা তিনি করবেন। এলাকার উন্নয়নের প্রয়োজনে যে কোন ক্ষেত্রে তার সঙ্গে যোগাযোগ করার বার্তাও দেন অঞ্জনা। অনেকক্ষেত্রেই বলা হয় অভিনেতা অভিনেত্রীরা সিরিয়াস পলিটিশিয়ান নন বরং মরশুমি রাজনীতিবিদ। সেই মিথও আজ অনেকটাই অনেকটাই ভুল প্রমাণিত হলো অঞ্জনার এই পাশে দাঁড়ানোয়।

Related Articles

Back to top button