টাইমলাইনভাইরাল

ভারতের তরুণতম কার্টিং সেন্সেশন আরাফাত শেখ

কথায় বলে যে আপনার স্বপ্নগুলি পূরণ করতে খুব বেশি দেরি বা খুব তাড়াতাড়ি করা উচিত না। এই গল্পটি হলো বছর সাতেকের এক যুবকের যে অল্প বয়সে অনেক খ্যাতি অর্ন করেছে। । আরাফাত শেখ হল ভারতের সবথেকে কনিষ্ঠ কার্টিং সংবেদন যে মহারাষ্ট্রের পুনে থেকে এসেছে।মাত্র চার বছর বয়সে আরাফাত কার্টিং শুরু করে। আহ হা! সম্ভবত সেই বয়স যেখানে আমরা “কার্টিং” শব্দের অর্থ কী তা সঠিকভাবে জানতাম না। কার্টিং হ’ল কার্টস বা গো-কার্টস নামে ক্ষুদ্রতর অটোমোবাইলগুলি ড্রাইভিং এবং রেসিং। এই মোটরসপোর্টটি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে তৈরী হয় এবং বর্তমানে ইউরোপে এটি বেশ জনপ্রিয়। এটি ভারতে আগত একটি খেলা যেখানে মন এবং শরীরের ফিটনেস অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

আরাফাত শেখ হল এমন এক উদাহরণ যে খুব কম বয়সে তার স্বপ্নগুলিকে তাড়া করতে শুরু করেছিলেন। আরাফাত বর্তমানে পুনের দ্য বিশপ স্কুল ক্যাম্পে দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্র। ছাত্র মাত্র ৬ বছর বয়সে আরাফাত আন্তর্জাতিক ল্যাম্প এক্স ৩০ এর (ইউ এ ই) চ্যাম্পিয়নশিপে ৬ বছর বয়সে তার রেসিংয়ের অভিষেক ঘটে। সংযুক্ত আরব আমিরাতে কার্টিং দ্রুত বাড়ছে।

ইউ এ ই কে কয়েকটি বিশ্বমানের ট্র্যাক দেওয়া হয়েছে এবং বেশ কয়েকটি রেসিং দল এখানে উপসাগরীয় সদর দফতর রয়েছে। বেশিরভাগ সার্কিট ড্রাইভাররাই ৫ বছর বয়সী। এই ক্ষেত্রে চ্যাম্পিয়নশিপের জন্য বিশেষ “বাম্বিনো” কার্টসের ব্যবস্থা থাকবে। চ্যাম্পিয়নশিপটি ৫ থেকে ৮ বছর বয়সী প্রতিযোগীদের জন্য। আরাফাত পি ২পজিশনটি সুরক্ষিত করার পরে আর তাকে পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি।

আরাফাত বর্তমানে ক্যাড ক্যাটাগরির অধীনে ৫ টি রাউন্ড সমন্বিত এক্স ৩০ জে কে টায়ার এফএমএসসিআই ন্যাশনাল কার্টিং চ্যাম্পিয়নশিপে অংশ নিচ্ছেন। আরাফাতের ৯ জন প্রতিযোগী তার থেকে ৫ বছরের জ্যৈষ্ঠ যাদের সামগ্রিকভাবে পি ৪ রয়েছেন। জে কে টায়ার ন্যাশনাল রেসিং চ্যাম্পিয়নশিপ হল এমন একটি প্লাটফর্ম যেখানে প্রতিটি ভারতীয় রেসিং চালক আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অগ্রসর হওয়ার আগে তাদের স্ট্রিপ অর্জন করেন।

এই চ্যাম্পিয়নশিপটি মেকো মোটর স্পোর্টস (‘এমএমএস’) দ্বারা পরিচালিত। এমএমএস হ’ল ভারতের রেসিং কিংবদন্তি আকবর ইব্রাহিমের শুরু করা ভারতের ১ নম্বর মোটরস্পোর্টস ম্যানেজমেন্ট এন্টারপ্রাইজ। তাঁর পুত্র আরমান ইব্রাহিম কার্টিংয়ে কেরিয়ার শুরু করেছিলেন এবং ২০০৪ সালে আরমান ফর্মুলা এলজিবি চ্যাম্পিয়ন হন। তিনি তাঁর সময়ের সেরা রেসার ছিলেন এবং তিনি ভারতীয় অনেক রেসারের অনুপ্রেরণা হয়েছিলেন। এমএমএস হ’ল এমন এক প্ল্যাটফর্ম যেখানে রেসিং এ আগ্রহীদের স্বপ্ন পূরণ করতে প্রশিক্ষন দেওয়া হয়। মেকো একাডেমিতে বিগত ১৫ বছর ধরে আন্তর্জাতিক সার্কিটে অংশ নিতে যে সমস্ত ভারতী রেসারকে কার্যত প্রশিক্ষণ দিয়েছিল সে সম্পর্কে গর্ববোধ করে।

আরাফাত শেখ প্রাগ কার্টসে এমএমএসের পরিচালনায় অভিজ্ঞতা অর্জন করছেন। প্রাগ একটি বিখ্যাত কার্ট চ্যাসিস ব্র্যান্ড। এটির সদর দফতর রয়েছে এবং উৎপাদন উত্তর ইতালির সালিজোলে অবস্থিত, ভারতে এর একটি ভাল বিতরনী চ্যানেল রয়েছে। আরাফাত সেপ্টেম্বর ২০১৯ এ শুরু হওয়া বাম্বিনো ক্লাসে ল্যাম্প এক্স 30 সংযুক্ত চ্যাম্পিয়নশিপ ২০১২ -২০১০ আসনে অংশ নেবেন।আরাফাত দুবাই-ও-প্লেট ২০২০ বিশ্বজুড়ে জনপ্রিয় কার্টিং সিরিজের প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন। বিদেশে কার্টিংয়ে অংশ নেওয়া তিনি সর্বকনিষ্ঠ ভারতীয়।

ইতিমধ্যেই অল্প বয়সেই আরাফাত বিশ্বকে ছাপিয়ে যাচ্ছেন। যেভাবে আরাফাথ তার উদাম চেষ্টা ও ইচ্ছে দিয়ে নিজের স্বপ্নকে উড়িয়ে দিয়েছে এবং সম্ভবত কিশোর-কিশোরীদের মধ্যে সবচেয়ে অনুপ্রেরণাদায়ী হবে।

Back to top button