টাইমলাইনবিনোদনরাজনীতি

মোদী নন, ২০২৪ এ মমতাই দেশের আশা, দলবদল করে দাবি বাবুল সুপ্রিয়র

বাংলাহান্ট ডেস্ক: এতদিন ছিলেন বিজেপিতে। কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসভা থেকে নাম কাটা যেতেই দল বদলে চলে এসেছেন তৃণমূলে। বুঝতেই পারছেন বলা হচ্ছে বাবুল সুপ্রিয়র (babul supriyo) কথা। আপাতত তাঁকে নিয়েই শোরগোল রাজ‍্য রাজনীতিতে। দল বদলাব না বদলাব না করেও শেষে গোটা ফুলটাই বদলে ফেলেছেন। প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর এমন ভেলকিতে জোর চমকেছে তাবড় রাজনীতিকরা।

এমনকি অন‍্য শিবিরে এসে রাতারাতি মতাদর্শই বদলে ফেলেছেন বাবুল। এতদিন যে নরেন্দ্র মোদীকে  বসিয়েছিলেন অনুপ্রেরণার আসনে সে স্থানে এখন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ‍্যোপাধ‍্যায় (mamata banerjee)। দলবদলের পর প্রথম বার সাংবাদিক বৈঠকে বাবুল সুপ্রিয়কে প্রশ্ন করা হয়েছিল, ২০২৪ সালে প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থীর মুখ কি মমতা বন্দ‍্যোপাধ‍্যায়?

উত্তরে তিনি বললেন, এই মুহূর্তে সবথেকে জনপ্রিয় মানুষকেই দেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দেখতে চান তিনি। আর তাঁদের মধ‍্যে মমতা বন্দ‍্যোপাধ‍্যায় অন‍্যতম, তাতে কোনো সন্দেহ নেই। বাবুলের কথায়, “২০১৪ সালে মোদীজী দেশের আশা ছিলেন। ২০২৪ সালে আমি যে দলে আছি তার পুরোধা আশার তালিকায় শীর্ষে থাকবেন। এর মধ্যে কোনও ত্রুটি নেই”।

তিনি জানান, মন ভেঙে গিয়েছিল তাঁর। অনেকেই বলেছিলেন রাজনীতি না ছাড়তে। তৃণমূল তাঁকে অনুপ্রেরণা দিয়েছে। “বাংলার মমতাদিদি,  ভারতের গুরুত্বপূর্ণ নেত্রী হয়ে উঠছেন, তিনি আমাকে সুযোগ দিয়েছেন। কাল অভিষেকের সঙ্গেও কথা হয়েছে। আমি অনেক সমর্থন ও ভালোবাসা পেয়েছি। তা-ও এমনটা একটা দল যাদের সঙ্গে আমার খারাপ সম্পর্ক ছিল”, বক্তব‍্য বাবুলের।

শনিবার তৃণমূল কংগ্রেসের অফিশিয়াল টুইটার হ‍্যান্ডেল থেকে বাবুলের পার্টিতে যোগদানের ছবি প্রকাশ করা হয়। তাঁর গলায় উত্তরীয় পরিয়ে দিতে দেখা যায় অভিষেক বন্দ‍্যোপাধ‍্যায়। ছবিগুলি শেয়ার করে বাবুলকে তৃণমূলের অভ‍্যন্তরে সাদরে স্বাগত জানানো হয়।

Related Articles

Back to top button