আন্তর্জাতিকটাইমলাইনভারত

আমেরিকা ও ইউরোপ পেরিয়ে এবার এক নতুন রোগের প্রকোপ ভারতেও, সুরাটে মিলল প্রথম আক্রান্ত

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ করোনা সংক্রমণের মধ্যেও সুরাটবাসী (Surat) আরও এক অজানা আতঙ্কে ভুগতে শুরু করেছে। এই রোগ আমেরিকা (America) এবং ইউরোপীয় দেশগুলিতে বেশি পরিমাণে দেখা গেলেও, এবার তা ভারতের (India) গুজরাটের সুরাটের এক শিশুর দেহে দেখা গেল। এই রোগকে ঘিরেই উদ্বেগ আরও বাড়ছে।

আক্রান্ত সুরাটের এক শিশু
সুরাটে বসবাসরত এক পরিবারের দশ বছরের বাচ্চার শারীরিক অবস্থার অবন্নতির কারণে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরিবারের লোকজন জানিয়েছেন, ওই শিশুটির বমি বমিভাব, কাশি, ডায়রিয়া এই রোগের লক্ষণ প্রকাশ পাওয়ার সাথে সাথে তার চোখ এবং ঠোঁট লাল হয়ে গেছে। তৎক্ষণাৎ চিকিৎসা শুরু করেন চিকিৎসকরা।

মাল্টিসেস্টেম ইনফ্ল্যামেটরি সিনড্রোম
ডাঃ আশীষ গোটী শিশুটিকে ভালোভাবে পর্যবেক্ষণ করার পর সুরাট এবং মুম্বাইয়ের অন্যান্য অভিজ্ঞ চিকিৎসকদের সাথেও পরামর্শ করেন। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন নতুন দৃশ্যমান এই রোগের নাম মাল্টিসেস্টেম ইনফ্ল্যামেটরি সিনড্রোম (Multisystem Inflammatory Syndrome)। একে আবার এমআইএস-সিও বলা হয়ে থাকে। এই ভয়ঙ্কর রোগের সাথে লড়াই করতে করতে ওই শিশুটির হৃদপিণ্ডের রক্ত সঞ্চালন প্রায় ৩০ শতাংশ কমে গেছে এবং সেইসঙ্গে তাঁর শরীরের বেশিরভাগ শিরা ফুলে ওঠার কারণে হার্ট অ্যাটাক হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

আশঙ্কিত চিকিতসকরাও
দীর্ঘ সাতদিনের চিকিৎসার পর ওই শিশুটিকে বাড়ি পাঠানো হয়েছে। তবে চিকিৎসকরা এই রোগ ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা প্রকাশ করছেন। তারা জানিয়েছেন, এই রোগ বিশেষত ৩ থেকে ২০ বছর বয়সী মানুষকে আক্রমণ করে। যার ফলে জ্বর, বমিভাব, ডায়রিয়া, চোখ এবং ঠোঁট লাল উপসর্গ প্রকাশ পায়। এই উপসর্গ প্রকাশ পাওয়ার সাথে সাথেই শিশুকে চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তারা।

চিকিৎসকরা আরও জানিয়েছেন, সঠিক সময়ে চিকিৎসা না করা গেলে, এই রোগ মহামারি করোনা ভাইরাসকেও হার মানাবে। এই রোগ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং ইউরোপীয় দেশগুলিতে বেশি পরিমাণে দেখা গেলেও, তা ধীরে ধীরে ভারতে প্রবেশ করতে শুরু করেছে। তাই অভিভাবকদের জানাচ্ছে, তাঁদের বাচ্চাদের প্রতি তাঁদের আরও যত্নবান হতে হবে।

Back to top button