টাইমলাইনভারত

বড় সিদ্ধান্ত মোদী সরকারের, গাড়ি চুরি রুখতে দুর্দান্ত পদক্ষেপ নিল কেন্দ্র

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ পরিবেশ দূষণ সমস্যা বর্তমানে একটি বৃহৎ আকার ধারণ করেছে। তবে সম্প্রত্তিকালে করোনা ভাইরাসের জেরে লকডাউনে যান চলাচল বন্ধ থাকায় বেশ অনেকটাই দূষণের মাত্রা কমে গিয়েছিল। এবার এই দূষণের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (Narendra modi) নিলেন এক বৃহৎ পদক্ষেপ। দূষণ কমালেই গাড়ি থাকবে সুরক্ষিত, হবে না চুরিও।

করাতে হবে পিইউসি সার্টিফিকেট
কেন্দ্র সরকারের নিয়ম অন্যযায়ী, পিইউসি বা পলিউশন আন্ডার কন্ট্রোল সার্টিফিকেট করিয়ে নিলেই আপনি দুদিক থেকে সুরক্ষিত- এক আপনি পরিবেশকে দূষণ মুক্ত রাখছেন, অন্যদিকে আপনার নিজের গাড়িকেও চুরি যাওয়ার হাত থেকে বাঁচাতে পারছেন। অনেকেই ভাবছেন এটা আবার কেমন সিস্টেম!

car647 022216090536 Bangla Hunt Bengali News

দূষণের হাত থেকে রক্ষিত হবে পরিবেশ
বিষয়টা হল, এই পিইউসি বা পলিউশন আন্ডার কন্ট্রোল সার্টিফিকেটের মাধ্যমে কেন্দ্র সরকার শুধুমাত্র আপনার শুধু গাড়ির দূষণ নিয়ন্ত্রণ পরীক্ষা করেই থেমে থাকবে না, সেইসঙ্গে আপনার গাড়ির নিরাপত্তার দিকটাও ভেবে রেখেছে। এই পিইউসি সার্টিফিকেটে একটি বিশেষ কিউআর কোড জেনারেট করা থাকবে। সেই কিউআর কোডের মধ্যে গাড়ির মালিকের যাবতীয় তথ্য- মালিকের নাম, রেজিস্ট্রেশন নাম্বার ইত্যাদি গাড়ি সংক্রান্ত নানাবিধ বিষয় আগে থাকতেই লোড করা থাকবে। এই পিইউসি করার সময় কেন্দ্র সরকারের তরফ থেকে গাড়ি মালিকের কাছে অটোমেটিকালি একটি ম্যাসেজ চলে যাবে।

হবে না গাড়ি চুরিও
ভবিষ্যতে গাড়িটি যদি চুরি হয় এবং তারপর যখন গাড়িটিকে পলিউশন টেস্টের জন্য নিয়ে যাওয়া হবে, তখন সেই কিউআর কোড স্ক্যান করলেই গাড়ির মালিকের যাবতীয় তথ্য সকলের সামনে চলে আসবে। সেই তথ্যের সঙ্গে সেখানে উপস্থিত গাড়ির মালিকের তথ্য না মিললেই ধরা পড়বে আসল চোর। এমনকি এই কিউআর কোড স্ক্যান করার সঙ্গে সঙ্গেই গাড়ির আসল মালিকের কাছে একটি ম্যাসেজ চলে যাবে, যেটি নকল মালিকের কাছে যাবে না। যার ফলে সেখানেই ধরা পড়ে যাবে যে সে গাড়িটি চুরি করেছে।

Back to top button