টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

দলীয় নেতারা ভীত, দায়িত্ব পেলে বীরভূমের মাটি ‘উর্বর’ করে তুলব! হুঙ্কার দুধকুমারের

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ গত বিধানসভা নির্বাচনে বিপুল পরিমাণ ভোটে জয়লাভের স্বপ্ন দেখিও অবশেষে ৭৭-এ থেমে বিজেপি (Bharatiya Janata Party)। শুধু তাই নয়, একইসঙ্গে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূল কংগ্রেসে (Trinamool Congress) যোগদান করেন একাধিক বিধায়করা। তার ওপর আবার গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব-ও চরম আকার ধারণ করতে শুরু করে। সেই ধারা বজায় রেখে এবার দলীয় নেতাদের উদ্দেশ্যে কটাক্ষ ছুড়ে দিলেন বিজেপি নেতা দুধকুমার মণ্ডল (Dudhkumar Mondal)। বীরভূমের বিজেপি নেতার দাবি, “বিধানসভা ভোটের ফল ঘোষণার পর বিজেপি কর্মীরা আক্রান্ত হলেও পাশে এসে দাঁড়ায়নি দলীয় নেতারা। তারা ঘর থেকে ভয় বের হতে পারেনি।” একইসঙ্গে তিনি বলেন, “আমাকে দায়িত্ব দিলে দলের জন্য জমি উর্বর করে তুলবো।”

গত বিধানসভা নির্বাচনে শোচনীয় হার হয় বিজেপির। পরবর্তীতে তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে তাদের কর্মী সমর্থকদের মারধর করার অভিযোগ তোলে পদ্মফুল শিবির। ভোট পরবর্তী সন্ত্রাস নিয়ে কলকাতা হাইকোর্টে মামলা পর্যন্ত দায়ের করা হয়। এদিন এই সকল প্রসঙ্গকে তুলে ধরেন দুধ কুমার মণ্ডল।

রামপুরহাটে বস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে যোগদান করে তিনি বলেন, “আমি মানুষের কাছে পৌঁছে গিয়েছিলাম। তাদের মনে দুঃখ দেখতে পেয়েছি। কিন্তু যারা দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা ছিল, তারা ভয় ঘর থেকে বের হয়নি। তাই মানুষের মনে প্রশ্ন জেগেছে যে, আমাদের দল কেন তাদের পাশে থাকল না?” পরবর্তীতে তিনি বলেন, “পঞ্চায়েত নির্বাচনে এখনো পর্যন্ত দলের তরফ থেকে কোনরকম দায়িত্ব দেওয়া হয়নি আমাকে। যদি দায়িত্ব পাই, তবে এখানকার মাটিকে দলের জন্য উর্বর করে তুলবো। দেখিয়ে দেবো আমি।”

বিজেপি নেতার এহেন মন্তব্যকে ঘিরে শুরু হয়ে গিয়েছে রাজনৈতিক বিতর্ক। তাঁর বক্তব্যকে কটাক্ষ করে তৃণমূল কংগ্রেস নেতা মলয় মুখোপাধ্যায় বলেন, “ওদের দলের প্রতি মানুষের কোন সমর্থন নেই। তাদের আবার গোষ্ঠী দ্বন্দ্ব। আসলে নিজেদের মধ্যে লড়াই করে চলেছে বিজেপি। আমরা ওদের নিয়ে ভাবতে চাই না।”

উল্লেখ্য, অতীতে একাধিকবার দলের বিরুদ্ধে বেফাঁস মন্তব্য করতে দেখা যায় দুধকুমার মণ্ডলকে। এদিন দুধকুমারের মন্তব্য প্রসঙ্গে এক বিজেপি নেতা বলেন, “উনি প্রবীণ নেতা। অনুষ্ঠান করেছেন দেখে ভালো লাগলো। তবে উনি সাংগঠনিক জেলার কেউ নন। তাই আমার বিশেষ কিছু বলার নেই।”

Related Articles