টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

‘দুয়ারে গর্ত” দেউলিয়া হয়েছে রাজ্য সরকার, তথ্য তুলে ধরে তুলোধোনা শুভেন্দুর

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ রাজ্য সরকারের যে আর্থিক পরিস্থিতি খুব একটা ভালো নয়, তা মুখ্যমন্ত্রীর একটি নির্দেশিকাতেই বোঝা গিয়েছিল, যেখানে তিনি বিভিন্ন দফতরের সচিবদের ভেবেচিন্তে খরচ করার কথা বলেছিলেন। এছাড়াও লক্ষ্মীর ভাণ্ডারের মতো প্রকল্প নিয়েও আর্থিক সমস্যার রিপোর্ট এসেছে। আর এরই মধ্যে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari) মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) সরকারকে খোঁচা দিয়ে একটি টুইট করেছেন।

শুভেন্দুবাবু ‘দুয়ারে সরকার”কে ‘দুয়ারে গর্ত” বলে কটাক্ষ করেছেন। তিনি টুইটে লিখেছেন, রাজ্য সরকার দেউলিয়া হয়ে গিয়েছে। আর তাঁর প্রভাব পড়েছে পূর্ত দফতরের উপর। ৬০ শতাংশ বাজেটে কাটছাঁট করার পরেও আধিকারিকদের খরচ বাঁচানোর নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে। উন্নয়ন উল্টো দিকে চলছে।”

এরপর শুভেন্দু অধিকারী মমতা সরকারের প্রকল্প দুয়ারে সরকারকে কটাক্ষ করে দুয়ারে গর্ত বলে আখ্যা দেন। উল্লেখ্য, রাজ্য সরকারের তরফ থেকে পূর্ত দফতরকে স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হয়েছে যে, রাস্তা খারাপ হলে সারাই ও রক্ষণাবেক্ষণ ছাড়া খুব দরকার না পড়লে টাকা খরচ করা যাবে না। এছাড়াও দফতর যতক্ষণ না নির্দেশ দিচ্ছে, ততক্ষণ রাস্তা চওড়া ও সম্প্রসারণের কাজও করা যাবে না। এই নিয়েই শুভেন্দু অধিকারী রাজ্য সরকারকে আক্রমণ করেছেন।

যদিও, এটাই প্রথম না যে বিরোধী দলনেতা রাজ্য সরকারকে দেউলিয়া বলে আখ্যা দিয়েছেন। এর আগে লক্ষ্মীর ভাণ্ডার প্রকল্প নিয়েও রাজ্যকে কটাক্ষ করেছিলেন তিনি। শুভেন্দু অধিকারী বলেছিলেন, ভোটের আগে সবাইকে লক্ষ্মীর ভাণ্ডার দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে ভোট মিটতেই নানান নিয়ম-কানুন লাগু করা হয়েছে। এটা রাজ্যের মহিলাদের সঙ্গে প্রতারণা ছাড়া আর কিছুই না।

Related Articles

Back to top button