টাইমলাইনভারত

মর্মান্তিকঃ কনে বিদায়ের মুহূর্তেই শোকের ছায়া, কান্নায় ভেঙ্গে হৃদরোগে প্রাণ হারালেন নববধূ

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ‘কনে বিদায়’ বিয়ের একটি আবেগঘন রীতি। এই রীতি মেনে বাপের বাড়ি ছেড়ে নববধূকে শ্বশুরবাড়ি চলে যেতে হয়। এরপর থেকে শ্বশুরবাড়িকেই মেয়ের আপন করে নিতে হয়। কিন্তু ওড়িশায় (odisha) এই কনে বিদায়ের মুহূর্তেই এক বিয়ে বাড়িতে নেমে এল শোকের ছায়া। কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে প্রাণ হারালেন নববধূ।

ওড়িশার জুলুন্দার বাসিন্দা রোজি কিছুদিন আগেই তাঁর বাবাকে হারিয়েছেন। বাবাকে হারানোর পর থেকে কিছুটা চুপচাপও হয়ে যায় সে। এর কিছুদিন পর টেটেলগাও গ্রামের বাসিন্দা বিসিকেসনের সঙ্গে তাঁর বিয়ের সম্বন্ধ পাকা হয়। আর বিয়ের দিনই ঘটে যায় সেই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা।

বিয়ের দিন সবকিছু ঠিকঠাক ভাবে মিটে গেলেও, সমস্যা দেখা যায় কনে বিদায়ের মুহূর্তে। ছোট থেকে যে বাড়িতে বড় হয়ে ওঠা, পরিবারের লোকজন সকলকে ছেড়ে শ্বশুরবাড়ি চলে যাওয়ার কষ্ট ধরে রাখতে পারেনি রোজি। জোরে জোরে চিৎকার করে কাঁদতে শুরু করে।

এভাবে কাঁদতে কাঁদতে আচমকাই মাটিতে লুটিয়ে পড়ে অজ্ঞান হয়ে যান রোজি। অনেক চেষ্টার পরও যখন তাঁর জ্ঞান ফেরানো সম্ভব হয়নি, তখন তাঁকে দুঙ্গুরুপলি কমিউনিটি স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে নিয়ে যতেই চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করে দেয়।

এই কথা শোনা মাত্রই মুহূর্তের মধ্যে বিয়ে বাড়ির পরিবেশে নেমে আসে শোকের ছায়া। ছোটবেলার সমস্ত স্মৃতি ছেড়ে নতুন পরিবেশে চলে যাওয়ার দুঃখ মেনে নিতে পারেনি নববধূ রোজি। কান্নায় ভেঙ্গে পড়েই সে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারায়।

Back to top button