টাইমলাইনখেলাক্রিকেট

বুমরা এবং শাহীন আফ্রিদির মধ্যে কে বেশি সফল হবেন বিশ্বকাপে? উত্তর দিলেন পন্টিং

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্ক: এইমুহূর্তে গোটা বিশ্ব অপেক্ষা করছে শাহীন শাহ আফ্রিদি এবং যশপ্রীত বুমরার প্রত্যাবর্তনের। কিন্তু চোট কাটিয়ে ফেরার পর আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে কে বেশি ভালো পারফরম্যান্স করবেন? এবার এই প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার কিংবদন্তি রিকি পন্টিং।  সংক্ষিপ্ততম ফরম্যাটে দুজনের ঈর্ষণীয় রেকর্ডের কথাও উল্লেখ করেছেন তিনি।

ছোট ফরম্যাটে বুমরা ৫৮ ম্যাচে ৬৯টি উইকেট নিয়েছেন এবং শাহীন আফ্রিদি ৪০ ম্যাচে ৪৭ উইকেট পেয়েছেন। দুই পেসারই নতুন বল উইকেট তোলার পাশাপাশি ডেথ ওভারেও রান আটকে রাখতে পারদর্শী। সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে তিনি বলে ছিলেন, “দেখুন, এদের দুজনের মধ্যে থেকে কাউকে এগিয়ে রাখা খুবই কঠিন। কারণ তারা গত কয়েক বছরে খেলার সমস্ত ফরম্যাটে নিজেদের প্রমাণ করেছেন। ”

কিন্তু শেষ পর্যন্ত, পন্টিং অভিজ্ঞতার খাতিরে বুমরাকে কিছুটা এগিয়ে রাখতে চেয়েছেন। তিনি বলেছেন “শুধুমাত্র অভিজ্ঞতার জন্য আমি বুমরাকে কিছুটা এগিয়ে রাখবো। ও অস্ট্রেলিয়ায় আগেও ভালো বোলিং করেছে, ও এখানে আফ্রিদির চেয়ে বেশি খেলেছে এবং আফ্রিদির চেয়েও বেশি বড় টুর্নামেন্ট খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে।”

এরপর পন্টিং বিশ্বের সবচেয়ে ধারাবাহিক ওপেনিং ব্যাটার বাবর আজম এবং জস বাটলারের মধ্যেও তুলনা করেন। বাবর ৮০টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলে ২৩১৮ রান করেছেন এবং বাটলার ৯৪টি ম্যাচে ১৫৬২ রান করেছেন। তা সত্ত্বেও তিনি ক্ষুদ্রতম ফরম্যাটে বাবরের চেয়ে ইংল্যান্ড অধিনায়ককেই এগিয়ে রেখেছেন।

তিনি বলেছেন যে নিঃসন্দেহে বাবর আজম টেকনিক্যালি বাটলারের চেয়ে অনেক দক্ষ ব্যাটার। কিন্তু যদি তাদের বিচার স্ট্রাইক-রেটের হিসাব দিয়ে করা হয়, তাহলে সেখানে দুজনের মধ্যে কোনও তুলনাই হয় না। বাটলার এই ফরম্যাটে পাকিস্তান অধিনায়কের চেয়ে অনেক বেশি এগিয়ে।

Related Articles