টাইমলাইনবিনোদন

ম্যানেজার দিশার মৃত্যুর সঙ্গে সুশান্ত মামলার যোগসূত্র! দু বছর পর প্রকাশ্যে চাঞ্চল্যকর তথ্য

বাংলাহান্ট ডেস্ক: দু বছর আগের সুশান্ত সিং রাজপুত (Sushant Singh Rajput) মৃত্যু মামলার নিস্পত্তি এখনো হয়নি। ২০২০ সালের জুন মাসে রহস্যজনক ভাবে মৃত্যু হয় বলিউড অভিনেতার। কিন্তু তাঁর মৃত্যুর কারণ এখনো ধোঁয়াশা হয়ে রয়ে গিয়েছে। তবে সুশান্ত মামলা সংক্রান্ত অন্য একটি রহস্যের সমাধান করল সিবিআই। প্রয়াত অভিনেতার প্রাক্তন ম্যানেজার দিশা সালিয়ান (Disha Salian) মৃত্যু মামলার সমাধান করল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা।

সুশান্তের মৃত্যুর সপ্তাহ খানেক আগে রহস্যজনক মৃত্যু হয় দিশার। বলিউডে ট্যালেন্ট ম্যানেজার হিসাবে বেশ নাম ছিল তাঁর। শুধু সুশান্ত নয়, আরো বেশ কয়েকজন তারকার ট্যালেন্ট ম্যানেজার হিসাবে কাজ করেছেন দিশা। কিন্তু তাঁর মৃত্যুর কয়েকদিন পরেই সুশান্তের মৃত্যুতে দুটো ঘটনার মধ্যে কোনো যোগসূত্র আছে কিনা তা ভাবিয়ে তোলে তদন্তকারীদের।


২০২০ সালের ৮ জুন মৃত্যু হয় দিশার। জানা গিয়েছিল, মুম্বই এর মালাডের একটি বহুতলের ১৪ তলার ফ্ল্যাটের ব্যালকনি থেকে পড়ে গিয়ে মৃত্যু হয় তাঁর। দিশার মৃত্যুতে পুলিসের কাছে কোনো অভিযোগ দায়ের না হলেও সুশান্ত মামলার সূত্রেই ওই বিষয়েও তদন্ত করেছিল পুলিস। অভিযোগ উঠেছিল, খুন করা হয়েছে দিশাকে।

কিন্তু দু বছর পর এই মামলায় সমাধান বের করেছে সিবিআই, যেখানে খুনের কোনো উল্লেখই নেই। সিবিআইয়ের দাবি, দিশার মৃত্যু নেহাতই একটা দুর্ঘটনা। জন্মদিনের আগে নিজের ফ্ল্যাটে পার্টি দিয়েছিলেন তিনি। ৮ জুন পার্টি চলছিল তাঁর ফ্ল্যাটে। মদ্যপ অবস্থায় ছিলেন দিশা। তাতেই নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ১৪ তলা থেকে পড়ে যান তিনি।

অভিযোগ উঠেছিল, মৃত্যুর আগে শারীরিক ভাবে হেনস্থার শিকার হয়েছিলেন দিশা। কিন্তু সিবিআইয়ের তরফে জানানো হয়েছে, তদন্তে এমন কোনো সূত্রই উঠে আসেনি যা থেকে প্রমাণ হয় যে দিশাকে হেনস্থা করা হয়েছিল বা এর মধ্যে কোনো রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র রয়েছে। সেই সঙ্গে এও দাবি করা হয়েছে, সুশান্ত এবং দিশার মৃত্যুর মধ্যে কোনো যোগসূত্রই নেই। যদিও সুশান্তের মৃত্যু নিয়ে এখনো কোনো কিছুই খোলসা করেনি সিবিআই।

Related Articles