fbpx
টাইমলাইন

এবার অফিসেই শরীরচর্চা, যোগ ব্রেক আনছে কেন্দ্র

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ অফিসে সারাদিন একই জায়গায় বসে বসে অনেকে অসুস্থ হয়ে পড়ছেন, আবার কাজের চাপে মানসিক ভাবে সমস্যায় জর্জরিত অনেকেই।  বাড়ি ফিরে বা সকালে শরীর চর্চার সুযীগ থাকে না অনেক সময়ই। এবার আপনি কর্মস্থলেই পাবেন সেই সুযোগ। টিফিন ব্রেকের মত যোগার জন্যও দেওয়া হবে বিরতি।

সরকারি ক্ষেত্র সহ কর্পোরেট সেক্টরেও দেবে এই বিরতি। জানাচ্ছে কেন্দ্রের ‘আয়ুষ’ মন্ত্রক। মোরারজি দেশাই ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ যোগা এবং কয়েকজন যোগ বিশেষজ্ঞকে সাথে নিয়ে এই উদ্যোগে সামিল হয়েছে কেন্দ্র।টাটা কেমিক্যালস, অ্যাক্সিস ব্যাঙ্ক , এরনস্ট অ্যান্ড গ্লোবাল কনসাল্টিং সার্ভিসেস এর মতো বেসরকারি সংস্থাও এই বিষয়ে আগ্রহ দেখিয়েছে।

জানা যাচ্ছে, কেন্দ্রের তরফ থেকে সরকারি প্রতিষ্ঠান ও বেসরকারি কর্পোরেট সেক্টরের কাছে  ৩০ মিনিটের যোগা ব্রেক এর প্রস্তাব থাকলেও  ৫ মিনিটের মতই পাওয়া যাবে এই ব্রেক। আপাতত পরীক্ষামূলকভাবে এই ব্রেক কার্যকর হতে চলেছে। তবে শীঘ্রই চালু হবে দেশ জুড়ে বিভিন্ন কর্মক্ষেত্রে।

যোগ হল প্রাচীন ভারতে উদ্ভূত এক বিশেষ ধরনের শারীরিক ও মানসিক ব্যায়াম এবং আধ্যাত্মিক অনুশীলন প্রথা। এর উদ্দেশ্য মানুষের শারীরিক ও মানসিক সুস্থতাবিধান। এই প্রথা ভারতে আজও প্রচলিত আছে। ২০১৪ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর রাষ্ট্রসংঘে ভাষণ দেওয়ার সময় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ২১ জুন তারিখটিকে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস বলে ঘোষণা করার প্রস্তাব দেন। সেই বছরই ১১ ডিসেম্বর রাষ্ট্রসংঘ রাষ্ট্রসংঘ সাধারণ পরিষদ ২১ জুন তারিখটিকে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস বলে ঘোষণা করেন।

Close
Close