টাইমলাইনখেলাক্রিকেট

ঋতুরাজের ব্যাটের ছোঁয়ায় ফের জয়ের বসন্ত ফিরল ধোনির চেন্নাইতে

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ করোনার কারণে প্রথম পর্বে ভারতে আয়োজন করা হলেও স্থগিত করে দিতে হয়েছিল আইপিএল। যার জেরে আজ থেকে আরব আমিরশাহীতে শুরু হল দ্বিতীয় পর্বের খেলা। আজ মুখোমুখি হয়েছিল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স এবং চেন্নাই সুপার কিংস। যদিও দলের অংশ হতে পারেননি রোহিত শর্মা। তার জায়গায় আজ অধিনায়কত্ব সামলান কিরণ পোলার্ড। টসে জিতে এদিন প্রথম ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নেন চেন্নাই অধিনায়ক মহেন্দ্র সিংহ ধোনি।

শুরুটা অবশ্য মোটেই ভালো হয়নি চেন্নাইয়ের জন্য। প্রথম তিন ওভারের মধ্যেই একদিকে যেমন বোল্ট ফিরিয়ে দেন ফ্যাফ ডুপ্লেসিস এবং সুরেশ রায়নাকে। অন্যদিকে তেমনি মিলনে ফিরিয়ে দেন মঈন আলিকে। তার উপর রাইডু রিটায়ার্ড হার্ট হাওয়ায় কার্যত আরও বেশি চাপে পড়ে যায় চেন্নাই। ব্যাটে তেমন রান পাননি মাহিও, মাত্র তিন রানের মাথাতেই তাকে ফিরিয়ে দেন মিলনে। যার ফলে একটা সময় মাত্র ২৪ রানে ৪ উইকেট খুইয়ে রীতিমত সমস্যায় ছিল ইয়োলো ব্রিগেড।

তবে গতবারের মতই ফের একবার ত্রাতা হয়ে ওঠেন তরুণ ঋতুরাজ গায়কোয়াড়। রবীন্দ্র জাদেজাকে সঙ্গে নিয়ে ইনিংস এগিয়ে নিয়ে যান তিনি। কার্যত তাদের ৮১ রানের পার্টনারশিপের দৌলতেই লড়াইয়ে ফেরে সিএসকে। রবীন্দ্র জাদেজা এদিন ২৬ রান সংগ্রহ করেছিলেন ঠিকই কিন্তু রান তোলার গতি সেভাবে বাড়াতে পারেননি। তবে শেষ পর্যন্ত মাত্র ৮ বলে ২৩ রানের যে ক্যামিও খেলেন ব্র‍্যাভো, কার্যত তার দৌলতেই ১৫৬ রানে পৌঁছায় ধোনির দল। অন্যদিকে মাত্র ৫৮ বলে ৯ টি চার ও ৪ টি ছয় দিয়ে সাজানো ৮৮ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলে নট আউট থাকেন ঋতুরাজ।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে অবশ্য ভালো হয়নি মুম্বাইয়ের শুরুটাও। দুই ওপেনার কুইন্টন ডি কক এবং অমলপ্রীতকে একা হাতেই ফিরিয়ে দেন দীপক চাহার। অন্যদিকে ঈশান কিশান এবং সূর্য কুমার যাদবকেও আজ দাঁড়াতে দেননি শার্দুল এবং ব্র‍্যাভো। অধিনায়ক পোলার্ডকে সঙ্গে নিয়ে সৌরভ তিওয়ারি কিছুটা প্রতিরোধ গড়ে তোলার চেষ্টা করেছিলেন ঠিকই। কিন্তু ১৫ রানের মাথায় পোলার্ডকে ফিরিয়ে মুম্বাইকে ফের একবার বড় ধাক্কা দেন হেজেলউড। দুর্ভাগ্যজনকভাবে রান আউট হন ক্রুনাল পান্ডেয়াও।

যার ফলে ম্যাচের দায়িত্ব কার্যত এসে পড়ে একা সৌরভ তিওয়ারির কাঁধে এবং মিডল অর্ডার তাসের ঘরের মতো ভেঙে পড়ায় চাপে পড়ে যায় মুম্বাই ইন্ডিয়ানস। তবে শেষ অবধি লড়াই মুম্বাইকে কিছুটা ম্যাচে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা করেছিলেন সৌরভ তিওয়ারি। কিন্তু তার অর্ধশত রান সত্বেও মাত্র ১৩৬ রানেই শেষ হয়ে যায় মুম্বাইয়ের ইনিংস। ফলত ২০ রানে ম্যাচ জিতে দ্বিতীয় পর্যায় আইপিএল সফর শুরু করল ধোনির ইয়োলো ব্রিগেড। এদিন তাদের হয়ে সর্বোচ্চ তিনটি উইকেট তুলে নেন ব্র‍্যাভো। এছাড়া দুটি উইকেট শিকার করেন দীপক চাহারও।

 

Related Articles

Back to top button