টাইমলাইনলাইফস্টাইল

ভুলেও তিনবারের বেশি শঙ্খ বাজাবেন না, সংসারে নেমে আসবে ঘোর বিপর্যয়

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ পুজো অর্চনা হোক কিংবা শুভ কাজ, হিন্দু রীতি অনুসারে শঙ্খ (Conch) বাজানোর একটা প্রথা রয়েছে। অনেক সময় শুভ কাজের শুরুতে শঙ্খ বাজিয়ে শুভ সূচনা করা হয়। আর পুজো আর্চার ক্ষেত্রে শঙ্খ বাজানো তো পুজোর একটি অংশ হিসাবেই ধরা হয়।

শঙ্খ বাজানোর ক্ষেত্রে তিন বার শঙ্খ বাজানোর রীতি প্রচলিত রয়েছে। বলা হয়, তিন বারের বেশি শঙ্খ বাজানো উচিত নয়। কিন্তু জানেন কি কেন তিনবার শঙ্খ বাজাতে নেই?

পুরাণ মতে, তিনবার শঙ্খ বাজালে ব্রহ্মা, বিষ্ণু ও মহেশ্বর সহ সকল দেবদেবীরা আমন্ত্রণ পান। কিন্তু তিনবারের বেশি শঙ্খ বাজালে দেবতাদের সঙ্গে অসুরদেরও আমন্ত্রণ জানানো হয়। তাই সর্বদা খেয়াল রাখবেন, যাতে তিনবারের বেশি চারবার শঙ্খ না বাজানো হয়।

আপনার সংসারের মঙ্গল কামনায় ভগবানের সামনে শঙ্খ বাজানোর সময় যদি ভুল করেও তিনবারের জায়গায় চারবার শঙ্খ বাজানো হয়ে যায়, তাহলে সংসারে বিপর্জয় নেমে আসতে পারে। দেবতাদের রোষের শিকার হতে পারেন আপনি। তাই শঙ্খ বাজানোর সময় সর্বদা খেয়াল রাখা উচিত। কারণ বলা হয়, সমুদ্র মন্থনের সময় অসুররা চারবার শঙ্খ বাজিয়ে “বলি অসুর” কে জাগ্রত করে তুলেছিল।

Back to top button