টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গবিধানসভা নির্বাচনরাজনীতি

গরীর সেবার সংকল্প নিয়ে রায়গঞ্জে হেভিওয়েটদের বিরুদ্ধে নির্দল প্রার্থী মহিলা অটোচালক মঞ্জু

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ একদিকে গোটা রাজ্য জুড়ে যেখানে ‘জয় হো’, ‘খেলা হবে’, ‘টুম্পা সোনা’ স্লোগান চলছে, তখন অন্যদিকে ‘গরীবের বন্ধু’ হয়ে নির্বাচনে নির্দল প্রার্থী হয়ে লড়ছেন রায়গঞ্জের (raiganj) মঞ্জু দাস (manju das)। একদিকে যখন তৃণমূল, বিজেপি এবং সংযুক্ত মোর্চার সমস্ত হেভিওয়েট প্রার্থীরা সাড়ম্বরে তাদের প্রচার চালাচ্ছেন, তখন নিজের অটোতেই ব্যানার লাগিয়ে প্রচার চালাচ্ছেন রায়গঞ্জের মহিলা অটোরিকশা চালক মঞ্জু দাস মন্ডল।

মঞ্জুর স্বপ্ন গরীব মানুষের সেবা করা। দারিদ্রের সংসারে অটো চালিয়েই সংসার চালান মঞ্জু। রায়গঞ্জ বিধানসভায় বহু রাজনৈতিক দলের নেতা মন্ত্রীরা প্রতিনিধিত্ব করলেও, তাঁর কথায় রায়গঞ্জের বাসিন্দা, সর্বোপরি ওই এলাকার দুঃস্থ-গরিব মানুষদের কোন উন্নতি হয়নি। তাই এবার ‘গরীবের বন্ধু’ হয়ে নির্বাচনে নির্দল প্রার্থী হয়ে লড়ছেন মঞ্জু দাস।

রায়গঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্রের হেভিওয়েট প্রার্থীদের মাঝে নির্দল প্রার্থী মঞ্জু রায়গঞ্জ শহরের রবীন্দ্রপল্লীর বাসিন্দা। তিনি রায়গঞ্জ-কর্নজোড়া রুটে অটোরিকশা চালান। নিজের এই অটোতেই প্রচারের ব্যানার লাগিয়ে এলাকাবাসীকে অনুরোধ করছেন তাঁকে যেন এবারের বিধানসভা নির্বাচনে দূরবীন চিহ্নে ভোট দিয়ে জয়ী করা হয়। তাঁর লক্ষ্য উন্নততর চিকিৎসা ব্যবস্থা এবং রায়গঞ্জে একটি মহিলা কলেজ স্থাপন করা।

শুধু তাই নয়, তাঁর অটোয় ওঠা যাত্রীদের কাছেও তিনি প্রচার চালাচ্ছেন। এলাকার গরীব মানুষের প্রতিনিধি হিসেবে, তাদের উন্নতির স্বার্থে বিধানসভা নির্বাচনে জয়লাভ করার স্বপ্ন দেখছেন মঞ্জু। আগামী ২২ শে এপ্রিল রায়গঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্রের নির্বাচন রয়েছে। এবার তাঁর এই ‘গরীবের বন্ধু’ হয়ে ওঠার শ্লোগান ঠিক কতোটা প্রভাব ফেলল মানুষের উপর, তা ২ রা মের ফলাফল দেখলেই বোঝা যাবে।

Back to top button