টাইমলাইনভারত

কেন্দ্রের কাছে হার মানল ফেসবুক, ব্যবসা বন্ধ হওয়ার ভয়ে ‘নির্দেশিকা মানতে চাই’ জানাল সংস্থা

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ অবশেষে কেন্দ্রের কাছে হার মানল ফেসবুক (facebook)। মেনে নিল সরকাররে দেওয়া নির্দেশাবলী। জানিয়ে দিল সরকাররে নির্দেশ মেনেই কাজ করবে তাঁরা। যার ফলে ভারতে ব্যবসা বন্ধ হওয়ার থেকে রেহাই পেল ফেসবুক।

সোশাল মিডিয়ায় অপপ্রয়োগ বন্ধ করতে গত ২৫ শে ফেব্রুয়ারি একগুচ্ছ নির্দেশিকা জারি করেছিল কেন্দ্র সরকার। সেখানে বলা হয়েছিল, আগামী ৩ মাসের মধ্যে অর্থাৎ ২৫ শে মে’র মধ্যে এই বিষয়ে কর্তৃপক্ষ কোন সিদ্ধান্ত না জানাতে পারলে, সরকারকেই কড়া পদক্ষেপ নিতে হবে। প্রয়োজনে বাজেয়াপ্তও ঘোষণা করা হতে পারে।

সিদ্ধান্ত জানানোর সময়সীমা আজই শেষ হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু সংস্থাগুলো কোন উত্তর না দেওয়ায়- তাহলে কি এবার ভারতে (india) বন্ধ হয়ে যাবে ফেসবুক, ট্যুইটার, ইনস্টাগ্রাম? এমন সব প্রশ্নের মুখে পড়তে হয়েছিল কর্তৃপক্ষকে। তবে অবশেষে কেন্দ্রের জারি করা নির্দেশিকার কাছে হার মেনে নিল ফেসবুক।

এদিন ফেসবুকের তরফে জানানো হয়েছে, ‘কেন্দ্রের নয়া নির্দেশিকা আমারা মেনে নিচ্ছি। তবে এখনও কিছু আলোচনার বিষয় রয়েছে। সেবিষয়ে কেন্দ্রের সঙ্গে আমরা কথা বলে নেব। ফেসবুক সবসময়ই চায়, যাতে গ্রাহকরা মুক্ত ভাবে ও সুরক্ষিত ভাবে নিজেদের মত প্রকাশ করতে পারে’।

প্রসঙ্গত, কেন্দ্রের পক্ষ থেকে জারি করা নির্দেশিকায় বলা হয়েছিল, এবার থেকে কোন ব্যক্তি বা কোন সংস্থা স্যোশাল মিডিয়ায় কোন আপত্তিজনক পোস্ট করলে, সেই পোস্টদাতা ও সংশ্লিষ্ট মাধ্যমকে আদালতে পেশ করতে হবে। পাশাপাশি ওটিটি প্ল্যাটফর্মগুলির উপরও ত্রিস্তরীয় নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা আরোপ করার বিষয়েও বলা হয়েছিল। সেই কারণে, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর এবং রবিশঙ্কর প্রসাদ এক বৈঠক করে নয়া গাইড লাইনের বিষয়েও জানিয়েছিলেন। সেখানে বলা হয়েছিল, একটি সংশ্লিষ্ট বিভাগ রাখতে হবে সেখানে স্যোশাল প্ল্যাটফর্মের সমস্ত অভিযোগ জানানো হবে। শুধু তাই নয় অভিযোগ পাওয়ার ৭২ ঘন্টার মধ্যেই ব্যবস্থা নিতে হবে কর্তৃপক্ষকে।

Related Articles