টাইমলাইনভারত

Live FANI ধ্বংশের দিকে এগিয়েছে সমুদ্র উপকূল

বাংলা হান্ট ডেস্ক:‘ফণী’ তীব্রতা নিয়ে তো নিয়ে কিন্তু সাধারণ মানুষের মধ্যে বেশ কিছুটা উদ্বেগ সৃষ্টি হয়েছে। সবার মাথায় চিন্তার ভাঁজ। ‘ফণী’ ঠিক কতটা সাংঘাতিক চেহারা নেবে সেই নিয়ে কিন্তু মানুষের মধ্যে যথেষ্ট আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।

সকাল থেকে পুরীতে ১৮০ কিলোমিটার বেগে তীব্র হাওয়া বয়ে চলেছে।বেশ কিছু গাছ ভেঙে পড়েছে। সমুদ্রের জল আর তার সীমারেখা পেরিয়ে উঠে এসেছে রাস্তায়। সাধারণ মানুষ জন ও মৎস্যজীবীদের বাইরে বেরোতে বারণ করা হয়েছে। প্রশাসন থেকে খালি করে করে দেওয়া হয়েছে পুরীর হোটেল গুলিও।

এটিকে হুগলি,কোলকাতায় হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি শুরু হয়েছে। মমতা ব্যানার্জি, মানুষকে নিরাপদ স্থানে থাকার নির্দেশ দিয়েছেন এবং কাঁচা বাড়ি ত্যাগ করার নির্দেশ দিয়েছেন। খড়গপুর থেকে তিনি মনিটারিং করছেন।

বিপদজনক বাড়িগুলি থেকে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে মানুষজনকে এবং স্কুলে স্কুলে খাওয়ার ব্যবস্থা করার করা হয়েছে।তাছাড়া একটি স্বেচ্ছাসেবীদের দল গঠন করা হয়েছে।

এখনো পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুযায়ী, ফণীর প্রকোপে একব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। ঝড়ের সময় একটি গাছ ঐ ব্যক্তির উপর পড়লে তার মৃত্যু হয়।

Back to top button
Close