টাইমলাইনভারত

রোজই উত্যক্ত করত প্রতিবেশী যুবক, অবশেষে ভাঙল ধৈয্যের বাঁধ! কুপিয়ে খুন করল কিশোরী

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ রাস্তায় বের হলেই একের পর এক অশ্লীল মন্তব্য, সঙ্গে বিভিন্ন রকম অঙ্গভঙ্গির শিকার হতে হতো এক কিশোরীকে। বারণ বা নিষেধ করা সত্ত্বেও শোনেনি  কোন কথা আর এই ঘটনার দরুণই অভিযুক্ত যুবকের বুকে ছুরি গেঁথে খুন করল ওই কিশোরী। ঘটনাটি ঘটেছে মধ্যপ্রদেশের ভোপালে; বর্তমানে ওই কিশোরী এবং তার পরিবারকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

অভিযোগ, বাড়ি থেকে বেরিয়ে কোথাও যেতে গেলেই হেনস্থার শিকার হতে হতো কিশোরীটিকে। বিশেষ অঙ্গভঙ্গি ও কটূক্তির দ্বারা উত্যক্ত করা হতো তাকে। পরবর্তীকালে এই ঘটনা সম্পর্কে বাবা-মাকে সম্পূর্ণটা খুলে বলে সে। এরপরে প্রতিবেশী যুবকটিকে বারণ করা সত্ত্বেও সে শোনে না কোন কথা। শেষে একপ্রকার বাধ্য হয়েই যুবকটির পরিবারকে অভিযোগ জানাতে গেলে উল্টে দুই পক্ষের মধ্যে বেঁধে যায় বাদানুবাদ।

সূত্রের খবর, দুই পরিবারের মধ্যে ঝগড়া চলাকালীন কিশোরীটি হটাৎ ঝাঁপিয়ে পড়ে যুবকের উপর এবং এরপরেই তার হাতে থাকা ছুরি নিয়ে হামলা করে বসে সে। আচমকা মেয়েটির এহেন হামলায় কিছুই বুঝে উঠতে পারে না সে এবং ছুরির আঘাতে তৎক্ষণাৎ মৃত্যু হয় তার। অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে হাজির হয় পুলিশ এবং এরপরে কিশোরী সহ তার বাবা-মাকে গ্রেফতার করা হয়।

অভিযুক্তার দাবি, “বাইরে বের হলে যেভাবে যুবকটি আমাকে উত্যক্ত করে চলত। তাতে মানসিকভাবে অবসাদে পড়ে যাই আর সেই ক্ষোভ থেকে হামলা করে বসি যুবকটির ওপর। ইচ্ছা করে কোনো কিছুই করিনি আমি।”

Related Articles

Back to top button