fbpx
টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গযাত্রা

এই শীতে ঘুরে আসুন বাংলার গ্র্যান্ড ক্যানিয়নে

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ক্যানিয়ন বলতে আমাদের চোখের সামনে যে ছবিটা আমাদের চোখের সামনে প্রথম ভেসে ওঠে তা আমেরিকার গ্রান্ড ক্যানিয়নের। দিগন্ত বিস্তৃত উঁচু পাথুরে ভিতর থেকে একে বেঁকে বইছে স্রোতস্বিনী কলরাডো। আর চলার পথে নদী তার নিপুন হাতে তৈরী করেছে অসাধারন সব ভাষ্কর্য। গ্র্যান্ড ক্যানিয়নে ঘুরতে যান সারা পৃথিবীর মানুষ।

আমরা অনেকেই জানিনা এমনই একটি ক্যানিয়ন রয়েছে আমাদের রূপসী বাংলাতেও। ধারে ভারে হয়তো তা আমেরিকার গ্রান্ড ক্যানিয়নের ধারে কাছে যায় না। তবে  গ্র্যান্ড ক্যানিয়নের থেকে লাল মাটির ভাষ্কর্য তৈরিতে সেও কিছু কম নয়।  কলকাতার কাছেই মেদিনীপুরের গড়বেতায় রয়েছে এই ক্যানিয়ন। যার স্থানীয় নাম গনগনি।

গনগনিতে কলরাডোর বদলে আছে শিলাবতী নদী। স্থানীয় নাম শিলাই। পল্লী বাংলার ছোট্ট দুরন্ত মেয়েটির মত বেণী খুলে সে যেন দৌড়ে পাড়ি দিয়েছে অনেকটা পথ। লাল মাটির প্রান্তর ভেদ করে। এখানেই আশ্রয় নিয়েছিল চূয়ার বিদ্রোহের নায়ক অচল সিংহ । এখানেই ফাঁসি দেওয়া হয়েছিল চূয়ার বিদ্রোহীদের। লোককথা বলে, মহাভারতের সময় পান্ডবরাও এসেছিলেন এখানে। কাছাকাছি আছে বেশ কয়েকটা মন্দিরও।

হাওড়া বা শালিমার থেকে ২ -৩ ঘন্টার ট্রেন সফরে পৌছানো যায় গড়বেতায়। পাশকুড়া রোড হয়ে গাড়িতেও খুব বেশী সময় লাগে না। থাকার জন্য লজও আছে। যদিও বর্ষাকাল এড়িয়ে যেতে পারলে ভাল। গেলে দেখতেই পারেন শিলাবতীর ভয়ংকর সুন্দর রূপ। লোককথা, ইতিহাস আর ভূগোলের অদ্ভুত মেলবন্ধনের স্বাদ পেতে উইকএন্ডে ঘুরে আসতেই পারেন বাংলার গ্রান্ড ক্যানিয়ন গনগনিতে।

Close
Close