টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গ

হাবড়া ডেঙ্গুতে মৃত্যু শিক্ষকের, আক্রান্ত শতাধিক

বাংলা Hunt ডেক্সঃ একটু বর্ষা হতেই শুরু হয়েছে ডেঙ্গুর প্রকপ। গত বছরের মতো আবারও কি মহামারী ডেকে আনবে ডেঙ্গু। এই আতঙ্ক তাড়া করে বেড়াচ্ছে এলাবাসীদের।

ডেঙ্গু তে মৃত্যু হলো এক শিক্ষকের। ঘটনা টি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনার হাবড়ার বিড়া এলাকায়। মৃত শিক্ষকের নাম ধীমান কান্তি মল্লিক(৪১)। তিনি স্থানীয় একটি প্রাথামিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক ছিলেন। পরিবার সূত্রে জানা যায় যে, বেশ কয়েক দিন ধরে তিনি জ্বরে ভুগছিলেন। গত সোমবার একটু বাড়াবাড়ি হওয়ায় মঙ্গল বার তাঁকে বারাসাতের একটি বেসরকারি হাসপাতাল ভর্তি করানো হয়। সেখানে তিন দিন চিকিৎসার পর কোন উপসম না হওয়ায়, পরে তাঁকে বৃহস্পতি বার কলকাতার বাইপাসের একটি বেসরকারি হাসপাতাল ভর্তি করানো হয়। সেখানে চিকিৎসা চলার পর শুক্রবার বিকেল তিন টে নাগাদ মারা যান ধীমান বাবু। ওই দিন রাত একটা নাগাদ ধীমান বাবুর মৃত দেহ বাড়িতে পৌছায়। এই ধীমান বাবুর ডেঙ্গু তে মৃত্যুর খবর পেয়ে গোটা এলাকায় নেমে আসে শোকের ছায়া। সেই ক্ষোভে ফুসছে থাকে এলাবাসীরা। এলাবাসীদের দাবী, বর্ষা শুরুর পর এলাকায় কোন জঞ্জাল পরিস্কার হয়নি, কোন নালা নর্দমা পরিস্কার হয়নি। প্রশাসন এর এই অবহেলার অভিযোগ তুলে তারা ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। গত বছর এই এলাকার ডেঙ্গু তে বেশ কয়েক জনের মৃত্যু হয়।

বছর ঘুরতে না ঘুরতে আবার সেই একই ছবি। এই নিয়ে এলাকায় তৈরী হয়েছে আতঙ্ক। এলাকা পরিস্কারের দাবী তুলেছে এলাকাবাসীরা। এর পাশাপাশি হাবড়ার বিভিন্ন এলাকায় জ্বরে আক্রান্ত হয়ে বেশ কয়েক টি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শতাধিক।

তাদের উপযুক্ত চিকিস্যার দাবীও তারা জানিয়েছে। ইতি মধ্যে হাবড়া হাসপাতালে প্রায় সত্তর জন জ্বরের রুগী আছেন তাদের উপযুক্ত চিকিস্যা না করলে তারাও মারা যেতে পারে বলেও দাবী করছেন তারা

Back to top button