আন্তর্জাতিকটাইমলাইনভারত

পাক বিদেশ মন্ত্রী কুরেশি বলেছিলেন, ‘অভিনন্দনকে না ছাড়লে ভারত রাত ৯ টার মধ্যে হামলা করে দেবে’

Bangla Hunt Desk: ২০১৯ সালের মার্চ মাসে ভারতের বায়ুসেনার পাইলট অভিনন্দন বর্তমানকে (Abhinandan Varthaman) মুক্তি দিয়েছিল পাকিস্তান। তখন বিনা যুদ্ধেই ভারতের বায়ুসেনার পালটকে ছেড়ে দিয়ে কি পাকিস্তান ‘শান্তি ও সৌজন্য’ প্রদর্শন করতে চেয়েছিল? তবে অভিনন্দন বর্তমানকে মুক্তি দেওয়ার জন্য পাকিস্তানের উপর আন্তর্জাতিক চাপও ছিল প্রচুর। নাকি কি পাকিস্তান ভারতের হামলার ভয় পেয়েছিল?

সেই ঘটনার এতদিন পর পাকিস্তান মুসলিম লিগ-নওয়াজ (PML-N) নেতা আয়াজ সাদিক জানিয়েছেন, ‘সেদিন অভিনন্দন বর্তমান পাকিস্তানের হাতে বন্দি হওয়ার পর পাক বিদেশমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কুরেশি (Shah Mahmood Qureshi) এক বৈঠকে বলেছিলেন- পাকিস্তান যদি অভিনন্দন বর্তমানকে মুক্তি না দেয় তাহলে ওই দিন রাত ৯ টার মধ্যেই ভারত পাল্টা আঘাত করবে পাকিস্তানের উপর’।

আয়াজ সাদিক আরও জানিয়েছেন, ‘সেদিন কুরেশির ওই বৈঠকে পাক সরকার ইমরান খান উপস্থিত ছিলেন না। পাকসেনা প্রধান বৈঠকে উপস্থিত হয়ে ঘেমে নেয়ে একশা। তখন বিদেশ মন্ত্রী বলেছিলেন, আল্লার দোহাই, অভিনন্দকে না ছাড়লে ভারত রাত ৯ টার মধ্যে হামলা করবে’।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ১৪ ই ফেব্রুয়ারী পুলওয়ামায় সেনার কনভয়ে বিস্ফোরক হামলা চালিয়েছিল পাকিস্তান। সেই জঙ্গি হামলায় সিআরপিএফের ৪০ জওয়ান শহিদ হয়েছিলেন। এই ঘটনার প্রতিবাদে ভোররাতে বালাকোটে পাকিস্তানের মাটিতে ঢুকে এয়ারস্ট্রাইক করেছিল ভারতীয় সেনারা। কিন্তু সেখানে ভারতীয় সেনার যুদ্ধ বিমান ভেঙ্গে গিয়ে পাকিস্তানের হাত ধরা পড়েন ভারতীয় বায়ুসেনার পাইলট অভিনন্দন বর্তমান।

তিনদিন ধরে পাকিস্তানের হেফাজতে থাকে ভারতীয় বায়ুসেনার পাইলট। এরপর আন্তর্জাতিক মহলের চাপে পড়ে এবং সর্বোপরি ভারতের হামলার ভয় পেয়ে ১ লা মার্চ ২০১৯ সালেই সম্মানের সঙ্গে ভারতের হাতে তুলে দেয়। দুবার করে সময় পরিবর্তন করার পর সেদিন রাত ৯ টা বেজে ২১ মিনিটে দেশের মাটিতে ফিরে আসেন ভারতীয় উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন বর্তমান। আবারও ৬ মাস পর ওই একই ককপিটে ফিরে দেশের সেবায় নিজেকে নিযুক্ত করেন।

Back to top button