টাইমলাইনআন্তর্জাতিক

চীন সীমান্তে ২৪ ঘন্টা কাজ চালানোর সিধান্ত ভারতের, লাদাখে পাঠানো হল ১৫০০ শ্রমিক

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ চীনের (china) সাথে যুদ্ধের মুখে দাঁড়িয়েছে ভারত (india)। এই পরিস্থিতি বিবেচনায় নিয়ে ভারত সরকার চীনের সাথে লেহ-লাদাখ সীমান্তে সড়ক নির্মাণ ত্বরান্বিত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সীমান্তবর্তী অঞ্চলগুলিতে ভারত যে অবকাঠামো উন্নয়ন করছে তাতে চীন ক্ষুব্ধ হয়েছে। তবে ভারত সরকার এও স্পষ্ট করে দিয়েছে যে, কেউ তার ভূখণ্ড তৈরি করলে ভারত তাতে বাধা দিতে পারে না।

বুধবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। আর এই বৈঠকে বর্ডার রোড অর্গানাইজেশন (বিআরও), আইটিবিপি, সেনা, সিপিডাব্লুডি এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয় যে, রাস্তাটি নির্মাণ কাজ দ্রুত করা হবে এবং ২৪ ঘন্টা কাজ চলবে। এর জন্য ১৫০০ শ্রমিককে লেহ ও লাদাখে পাঠানো হবে।

প্রথম ধাপে ইন্দো-চীন সীমান্ত রোড (আইসিবিআর) এবং দ্বিতীয় ধাপের ভারত-চীন সীমান্তে ৩২ টি রাস্তা নির্মিত করা হবে। ঝাড়খণ্ড থেকে শ্রমিকদের জন্য একটি বিশেষ ট্রেন চালানো হবে। যাতে ঐ ট্রেনে শ্রমিকরা আসতে পারে। মুখ্যমন্ত্রী হেমন্ত সোরেন নিজেই ট্রেনের পতাকা উত্তোলন করে ছিলেন। কিন্তু গ্যালভান উপত্যকায় সংঘর্ষের সংবাদ পাওয়ার পরে ট্রেন চলাচল বন্ধ করা হয়। তাই এখন শ্রমিকদের বিমান করে লেহ-লাদাখ পাঠানো হবে।

উল্লেখ্য, গত বছরে ভারত চীনের সীমান্তে তার অবকাঠামো উন্নত করেছে। যার কারণে চীন সমস্যায় পড়েছে। চীন নিজেই সীমান্তে রাস্তাটি তৈরি করেছে কিন্তু তখন ভারত আপত্তি জানিয়েছিল। তবে ভারত এ কথাও বলতে শোনা গিয়েছে যে,  তার অঞ্চলে রাস্তাঘাট তৈরির ভারতের প্রতিটি অধিকার আছে এবং ভারত নির্মাণ চালিয়ে যাবে।

Related Articles

Back to top button