টাইমলাইনখেলাক্রিকেটIPL

ইংল্যান্ড না অস্ট্রেলিয়া কোথায় হবে বাকি আইপিএল? কর্তাদের মত বিভাজন নিয়ে চাপে বিসিসিআই

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ দেশজুড়ে করোনার বাড় বাড়ন্ত, লাগাম ছাড়া করোনা সংক্রমনের জেরে মাঝ পথেই আইপিএল বন্ধ করে দিতে বাধ্য হয় বিসিসিআই। আইপিএল বন্ধ করে দেওয়ায় ক্রিকেটারদের পাশাপাশি বিরাট পরিমাণ আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়তে হয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডকেও। আর এমন পরিস্থিতিতে যেনতেন প্রকারে অন্য কোন ভ্যেনুতে আইপিএল আয়োজন করতে মরিয়া ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড।

প্রথমে আইপিএলের বাকি ম্যাচগুলি সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে করার কথা থাকলেও বিসিসিআইয়ের এক কর্তা জানিয়েছেন এই সময় সংযুক্ত আরব আমিরশাহির আবহাওয়া ক্রিকেট খেলার জন্য উপযুক্ত নয়। অক্টোবর- নভেম্বর মাসের আগে সেখানে কোনো ভাবেই ক্রিকেট ম্যাচ আয়োজন করা সম্ভব নয়। সেই কারণে সংযুক্ত আমিরশাহীকে বাতিল করেছে বিসিসিআই। আর তারপরই ইংল্যান্ডের চারটি কাউন্টি ক্লাব বিসিসিআই এর কাছে আইপিএল আয়োজন করার দাবি জানিয়েছে।

ইংল্যান্ডে আইপিএল হলে সবদিক থেকে সুবিধা পাবে বিসিসিআই। কারণ ইংল্যান্ডের আবহাওয়া ক্রিকেটারদের স্বাস্থ্যের পক্ষে খুবই ভালো। এছাড়াও ইংল্যান্ডের যে ক্লাব গুলি আইপিএল আয়োজন করার দাবি জানিয়েছে তাদের হোম গ্রাউন্ড হল লর্ডস, এজবাস্টন, কিয়া ওভাল এবং ওল্ড ট্র্যাফোর্ড। আর এই সমস্ত স্টেডিয়াম গুলিতে দর্শক প্রবেশের পূর্ণ অনুমতি পাওয়া যাবে। সেক্ষেত্রে বাণিজ্যিক ভাবেও লাভবান হবে বিসিসিআই।

তবে ইংল্যান্ডের সঙ্গে ভারতের সময়ের পার্থক্য যেহেতু অনেকটা সেই কারণে বিসিসিআইয়ের কয়েকজন কর্তা দাবি জানিয়েছেন অস্ট্রেলিয়াতে আইপিএলের ম্যাচ গুলি আয়োজন করার। কারণ অস্ট্রেলিয়া এবং ভারতের ক্রিকেটীয় সম্পর্ক খুবই ভালো এছাড়া দুই দেশের মধ্যে সময়ের পার্থক্যও খুব বেশি নয়। সেক্ষেত্রে আইপিএলের ম্যাচ দেখতে খুব একটা অসুবিধা হবে না দর্শকদের।

Related Articles

Back to top button