fbpx
টাইমলাইনভারত

রাঁচির মসজিদে লুকিয়েছিল ১৭ জন বিদেশী ধর্মপ্রচারক! তাঁদের ধরে আইসোলেশনে পাঠাল পুলিশ

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ ঝাড়খণ্ডের (Jharkhand) রাজধানী রাঁচির (Ranchi) হিন্দপিড়ি এলাকার একটি মসজিদে লুকিয়ে থাকা ২৪ জনকে হেফাজতে নেয় পুলিশ। রবিবার রাতে গোপন খবর পাওয়ার পর এই তল্লাশি চালানো হয়। এদের সবাইকে খেলগাঁওয়ে করোনা ভাইরাসের (Coronavirus) জন্য বানানোর আইসোলেশন ওয়ার্ডে (Isolation Ward) রাখা হয়েছে। প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, এরা ধার্মিক প্রচারের জন্য জানুয়ারি মাসে ভারতে এসেছিল। এদের মধ্যে আফ্রিকার ২, ইংল্যান্ডের ৪, পোল্যান্ডের ১, মালয়েশিয়ার ৮, ওয়েস্টইন্ডিজের দুজন নাগরিক আছে। মোট ১৭ জন বিদেশী আর ৭ জন দেশি নাগরিক আছে।

ম্যাজিস্ট্রেট গজেন্দ্র প্রসাদ সিং বলেন, এদের কাগজপত্র আর করোনাভাইরাসের স্যাম্পেল এর পরীক্ষা চলছে। বিদেশী নাগরিকদের পাসপোর্ট আর ভিসা বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। এদের মধ্যে দুজন সম্প্রতি কেরল থেকে রাঁচিতে এসেছেন। সদর হাসপাতালের টিম এদের স্যাম্পেল নিয়ে পরীক্ষা শুরু করেছে।

এর আগে রাঁচির তমাড় এলাকা থেকে পুলিশ ১১ জন বিদেশী মৌলবিকে হেফাজতে নিয়েছিল। তাঁরা চীন, কির্গিস্তান আর কাজাকিস্তানের বাসিন্দা, আর ওঁরা তমাড় এর রড়গাঁওতের একটি মসজিদে লুকিয়ে ছিল। প্রশাসন গোপন খবর পেয়ে তল্লাশি চালায়। এরপর এদের হেফাজতে নিয়ে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়। সব বিদেশী মৌলবিই ১৯ মার্চ দিল্লী থেকে রাঁচি এসেছিল। এরপর রাঁচি থেকে জামশেদপুর যাওয়ার জন্য এরা ওই মসজিদে শরণ নিয়েছিল। সবাই নিজেদের ধর্মপ্রচারক বলে পরিচয় দিয়েছে।

আপনাদের জানিয়ে দিই, ঝাড়খণ্ডের রিমস হাসপাতালে এখনো পর্যন্ত ১৪ জনের স্যাম্পেল পরীক্ষা করা হয়েছে, আর তাঁদের মধ্যে ১৩ জনের রিপোর্ট পজেটিভ এসেছে। একটি স্যাম্পেল খারাপ হওয়ার কারণে আবারও নতুন করে স্যাম্পেল নিয়ে পরীক্ষা করা হবে। আরেকদিকে, জামশেদপুরের এমজিএম হাসপাতালে পরীক্ষার জন্য পাঁচটি স্যাম্পেল পাঠানো হয়েছে। তাঁদের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে।

Back to top button
Close
Close