টাইমলাইনবিনোদন

এফআইআর নয়, প্রেমপত্র চাই! তিরুপতি বালাজি মন্দিরে পুজো দিয়ে নতুন বছর শুরু করলেন কঙ্গনা

বাংলাহান্ট ডেস্ক: নতুন বছরের শুরুতে পার্টিতে মত্ত বলিপাড়ার তারকারা। অন‍্যদিকে এসব জাঁকজমক থেকে দূরে ঈশ্বরের চরণে শান্তির খোঁজে গেলেন কঙ্গনা রানাওয়াত (kangana ranawat)। তিরুপতি বালাজি এবং অপর একটি মন্দিরে পুজো দিয়ে ভালবাসা প্রার্থনা করলেন তিনি। গোটা বছর ধরে তাঁকে প্রচুর সমালোচনার শিকার হতে হয়। তাঁর প্রতিটি মন্তব‍্যকে নিয়েই তৈরি হয় বিতর্ক, দায়ের হয় অভিযোগ। কিন্তু নতুন বছরে এসব আর চাই না কঙ্গনার, বদলে তিনি চাইলেন প্রেমপত্র!

একটি লাল শাড়ি ও ভারী সোনার গয়নায় সেজে ইংরেজি নতুন বছরের শুভেচ্ছা জানালেন কঙ্গনা। লিখলেন, ‘সবাইকে নতুন বছরের শুভেচ্ছা। তিরুপতি বালাজির থেকে আশীর্বাদ নিয়ে এই বছরটা শুরু করছি। আশা করছি এই বছরটা স্মরণীয় হয়ে থাকবে।’


পাশাপাশি মন্দিরে পুজো দিয়ে প্রার্থনা করারও কয়েকটি ছবি শেয়ার করেছেন তিনি। এখানে তাঁর পরনে হালকা গোলাপি শাড়ি। ছিমছাম সাজে মন্দিরে পুজো দিয়েছেন অভিনেত্রী। গোমাতাকে খাওয়ানোরও একটি ছবি শেয়ার করেছেন তিনি। সঙ্গে একটি বড় বার্তাও দিয়েছেন কঙ্গনা।

তিনি লিখেছেন, ‘বিশ্বে একটাই রাহু কেতুর মন্দির আছে। তিরুপতি বালাজির মন্দির থেকে খুব কাছেই… সেখানে কিছু আচার পালন করলাম। পাঁচটি মৌলিক লিঙ্গের মধ‍্যে বায়ু লিঙ্গ এখানে রয়েছে। খুব উল্লেখযোগ‍্য একটি স্থান। আমার প্রিয় শত্রুদের থেকে করুণা প্রার্থনা করতে গিয়েছিলাম। এই বছরে পুলিসে অভিযোগ বা এফআইআর কম আর প্রেমপত্র বেশি চাই আমি। জয় রাহু কেতু জি কী!’

গত বছরটা ভালোয় মন্দয় কেটেছে কঙ্গনার। ২০২১ এই পদ্মশ্রী সম্মানে সম্মানিত হয়েছেন তিনি। আবার তার পরপরই ভারতের স্বাধীনতা নিয়ে বিতর্কিত মন্তব‍্য করায় তাঁর পদ্মশ্রী ফেরানোর ডাক উঠেছিল। শিখদের ধর্মাবেগে আঘাত হানারও অভিযোগ উঠেছিল কঙ্গনার বিরুদ্ধে। এমনকি এফআইআরের পাশাপাশি খুনের হুমকিও পেয়েছিলেন তিনি।

কিন্তু নতুন বছরে আর সেসব চান না কঙ্গনা। নিজের প্রযোজিত ‘টিকু ওয়েডস শেরু’র কাজ শুরু করেছেন তিনি। পাশাপাশি নিজের অভিনীত তেজস ও ধাকড় ছবিও মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে তাঁর। সব মিলিয়ে ২০২২ এ বেশ ব‍্যস্ত থাকবেন কঙ্গনা।

Related Articles

Back to top button