fbpx
টাইমলাইনবিনোদন

‘কোনওদিন শোধরাবে না, মানসিক অবসাদের নাটক’, ফের স্বজনপোষনের অভিযোগে করনকে তুলোধনা নেটজনতার

বাংলাহান্ট ডেস্ক: একের পর এক ভুল করে যাচ্ছেন বলিউডের অন‍্যতম খ‍্যাতনামা পরিচালক তথা প্রযোজক করন জোহর (karan johar)। সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত‍্যুর পর থেকেই নেপোটিজমের (nepotism) অভিযোগে করনের উপর চূড়ান্ত ক্ষুব্ধ নেটজনতা। তাঁর আগামী ছবি সূর্যবংশী বয়কট করার ডাক দিয়ে সারাক্ষণ প্রচার চলছে সোশ‍্যাল মিডিয়ায়।
এমতাবস্থায় নিজেদের কার্যক্রমের দিকে নজর দেওয়া তো দূর বরং সেই একই ভুল করে চলেছে করনের প্রযোজনা সংস্থা ধর্মা প্রোডাকশন (dharma production)। আর তার ফল ভোগ করতে হচ্ছে করনকে। সম্প্রতি আলিয়া ভাট, বরুন ধাওয়ান ও সিদ্ধার্থ শুক্লা অভিনীত হাম্পটি শর্মা কি দুলহনিয়া ছবির ছয় বছর পূর্ণ হয়।

সেই উপলক্ষে শনিবার ধর্মা প্রোডাকশনের তরফে একটি টুইট করা হয়। এই টুইটে বরুন ও আলিয়া ও পরিচালক শশাঙ্ক খৈতানকে ট‍্যাগ করলেও সম্পূর্ণ অগ্রাহ‍্য করা হয় ছবির অন‍্য অভিনেতা সিদ্ধার্থ শুক্লা ও আশুতোষ রানাকে। অথচ ছবিতে দ্বিতীয় মুখ‍্য চরিত্রে ছিলেন সিদ্ধার্থ।

স্বাভাবিক ভাবেই সিদ্ধার্থ অনুরাগীদের ক্ষোভ গিয়ে পড়ে করনের ওপর। এমনিতেই সুশান্তের মৃত‍্যুর পর থেকে তুমুল ট্রোল হয়ে চলেছেন তিনি। সমালোচনার ভয়ে ইতিমধ‍্যেই বদলে ফেলেছেন নম্বর। বন্ধ করেছেন সোশ‍্যাল মিডিয়া হ‍্যান্ডেলের কমেন্ট সেখশন। অপরদিকে তাঁরই কোম্পানি উড়িয়ে চলেছে নেপোটিজমের ধ্বজা।
সিদ্ধার্থ শুক্লার অনুরাগীদের প্রশ্ন, নিজের কোনও ছবির বর্ষপূর্তি উদযাপনে সব অভিনেতাদের ট‍্যাগ করবেন না কেন করন? তাঁরা আরও বলেছেন, করন কোনওদিনও শোধরাবে না। মানসিক অবসাদটাও নাটক ছিল।

Back to top button
Close