টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

যারা বেসুরো তারা তাড়াতাড়ি বিদায় নিন, আমরা সবকিছু নতুন ভাবে শুরু করব: লকেট চ্যাটার্জী

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ইয়াস পরবর্তীতে বজ্রাঘাতে প্রাণ হারালেন বাংলার ২৯ জন মানুষ। যার মধ্যে সিঙ্গুরে বজ্রাঘাতে মৃতদের পরিবারকে সমবেদনা জানাতে সেখানে গিয়েছিলেন যান লকেট চট্টোপাধ্যায় (Locket Chatterjee)। আর সেখান থেকেই গর্জে উঠলেন দলবদলুদের বিরুদ্ধে, দিলেন কড়া বার্তাও।

এদিন সিঙ্গুরে গিয়ে প্রথমে নসিবপুরে সুস্মিতা কোলের বাড়িতে গিয়েছিলেন বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়। সেখানে তাঁদের সঙ্গে কাথাবার্তা বলার পর, দাদপুরের সাটিথানে কিরণ রায়ের বাড়িতে গিয়েছিলেন। সেখানে গিয়ে এই মৃতের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে বেশকিছুক্ষণ কথাও বলেন লকেট।

কিছুদিন ধরেই বিজেপির অন্দরে কিছু বেসুরো সুর বেজেই চলেছে। নির্বাচনের পূর্বে বিজেপির বাংলায় জয়ের কান্ডারি হতে যারা তৃণমূল ছেড়ে গেরুয়া শিবিরে আশ্রয় নিয়েছিলেন, তাঁদের মধ্যে সিংহভাগই এখন আবারও ফিরতে চাইছেন সবুজের আভায়। বিভিন্ন কারণ দেখিয়ে, তাঁরা আবারও মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জীর ছত্রছায়ায়ই ফিরতে চাইছেন।

এই তালিকায় ইতিমধ্যেই নাম লিখিয়েছেন দীপেন্দু বিশ্বাস, সোনালী গুহরা। তবে কিছুদিন ধরেই এবার বেসুরো সুর শোনা যাচ্ছে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Rajib Banerjee) গলায়। সম্প্রতি স্যোশাল মিডিয়ায় তাঁর করা একটি পোস্ট দেখে, সেই জল্পনা আরও উস্কে উঠেছে। একই সুর তুলেছেন আবার রন্তিদেব সেনগুপ্তও।

এবার এই দলবদলুদের বিরুদ্ধে সুর চড়ালেন লকেট চট্টোপাধ্যায়। তিনি কটাক্ষের সুরে বলেন, ‘বাংলার ২ কোটি ২৭ লক্ষ মানুষ বিজেপিকে ভোট দিয়েছেন। যারা চলে যেতে চাইছেন, তাঁরা তাড়াতাড়ি বিদায় নিন। আমরা নতুন উদ্যোমে আবারও কাজ শুরু করব। আগেই বুঝেছিলাম, এখন যারা বেসুরো হয়েছেন, তাঁরা ভবিষ্যতে এরকমই কিছুটা একটা করবেন। অন্যায়ের বিরুদ্ধে লড়াই জারি রাখব। মানুষের পাশে থেকে মন জয়ের কাজ আমরা চালিয়ে যাব। যারা দলের ভালো চায় না, তাঁদের বিরুদ্ধে দল ঠিক ব্যবস্থা নেবে’।

Related Articles

Back to top button