টাইমলাইন

‘চপ, ঢপ আর বোমা’- বাংলায় শুধু তিনটেই শিল্প, মমতা ব্যানার্জীকে আক্রমন লকেট চ্যাটার্জির

২১ এর ভোটের আর দেরি নেই। জমে উঠেছে শাসক বিরোধী তর্জা। বিরোধীদের আক্রমণ করতে গিয়ে মমতা ব্যানার্জীকে (mamata Banerjee) এর ‘ত্যাগী’ শব্দকেই এবার পালটা দেওয়ার হাতিয়ার করলেন লকেট চ্যাটার্জি (locket Chatterjee)। পাশাপাশি তিনি বলেন ২১ এর ভোটের পর কালীঘাটে পিসি আর ভাইপো ছাড়া কেউ থাকবে না।

বাঁকুড়ার শুনুকপাহাড়ীর সভা থেকে বিরোধীদের আক্রমণ করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, সিপিএম হল লোভীর দল। আর বিজেপি ভোগী। একই প্রসঙ্গে  নিজের দলকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ‘ত্যাগী’ বলেন। সেই কথাকেই এবার হাতিয়ার করলেন লকেট। তিনি বলেন ‘আমফানের ত্রাণ চুরি করা, কেন্দ্রের পাঠানো চাল-ডাল চুরি করা তৃণমূল নাকি ত্যাগী!’

পাশাপাশি তিনি আরো বলেন,  পরিযায়ী শ্রমিকরা বাড়ি ফেরায় স্পষ্ট হয়েছে বাংলার কর্মসংস্থানের হাল খারাপ। বাংলায় কোনও কাজ নেই তাই মানুষকে বাড়ি ছেড়ে পরিবার পরিজন অন্য রাজ্যে পাড়ি দিতে হয়। করোনার কারণে তাদের রাজ্যে ফিরতে হলেও কাজ না থাকায় ফের কাজের সন্ধানে অন্যত্র যেতে হয়েছে। শাসক দলের উদ্দেশ্যে কটাক্ষ ছুড়ে তার বক্তব্য ‘বাংলায় শুধু তিনটেই শিল্প, চপ, ঢপ আর বোমা’। নারী নির্যাতন সহ একাধিক ইস্যুতেও মুখ্যমন্ত্রীকে বিঁধেছেন লকেট। রাজ্যে সন্ত্রাস দমনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ব্যার্থ বলেও দাবি করেন তিনি।

বিজেপির পাশাপাশি মমতার বক্তব্য নিয়ে কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছে বামফ্রন্টও। তাদের বক্তব্য, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বুঝে গিয়েছেন তার যাওয়ার সময় হয়ে গিয়েছে। সিপিএমকে লোভী বলছেন! হিম্মত থাকলে তাঁর দলের নেতাদের সম্পত্তির হিসেব দিন মমতা। পাশাপাশি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সম্পত্তি নিয়েও প্রশ্ন তোলেন তিনি।

Back to top button