fbpx
টাইমলাইনভারত

মাটি খুঁড়ে উদ্ধার করা হল নন্দী ভগবানের কয়েক’শ বছরের পুরনো মূর্তি

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ কর্ণাটকের মাইসুরের কাছে একটি শুকিয়ে যাওয়া ঝিল থেকে কয়েকশ বছর পুরানো ভগবান শিব এর বাহন নন্দী-র দুটি মূর্তি পাওয়া গেছে। ওই ঝিলে খনন কার্জ চলার সময় এই মূর্তি দুটি উঠে আসে। এই খবর এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় চরম ভাইরাল হচ্ছে। প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, মাইসুর থেকে প্রায় ২০ কিমি দূরে অবস্থিত আরাসিনাকেরে-র একটি শুকিয়ে যাওয়া ঝিল থেকে খনন কাজ চলার সময় ভগবান শিবের বাহন নন্দি-র দুটি প্রতিমা উদ্ধার হয়েছে।

শোনা যাচ্ছে যে, এলাকার গ্রামবাসীরা এই মূর্তি গুলোকে মাটি খুঁড়ে বের করে। সোশ্যাল মিডিয়ায় পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, আরাসিনাকেরে-র বয়স্ক বাসিন্দারা এই ঝিলে নন্দী-র মূর্তি থাকার কথা বলত। যখন এই ঝিলের জল শুকিয়ে যেত, তখন নাকি নন্দী ভগবানের প্রতিমার কিছুটা অংশ দেখা যেত। শোনা যাচ্ছে যে, এই বছর দেশের কিছু যায়গায় চরম পরিমাণে খরা দেখা দিয়েছে, আর খরার কারণে ওই ঝিলের জল সম্পূর্ণ শুকিয়ে গেছে। আর জল সম্পূর্ণ শুকিয়ে যাওয়ার পর, স্থানীয় মানুষ সেখানে খনন কাজ চালিয়ে নন্দী ভগবানের মূর্তি থাকার সত্যতা যাচাই করতে চেয়েছিল।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, স্থানীয় মানুষ তিন থেকে চারদিন ধরে ওই ঝিল এ খনন কাজ চালিয়েছে। খননের কাজ দ্রুত গতিতে করার জন্য তাঁরা জেসিবি ম্যাশিন ভাড়া করে এনেছিল। প্রায় পাঁচ দিন খনন করার পর, নদী গর্ভ থেকে ভগবান শিবের বাহন নন্দী-র দুটি প্রতিমা উঠে আসে।

এই খবরের যাচাই এর জন্য পুরাতত্ব বিভাগের একটি দল সেখানে রওনা দিয়েছে। শোনা যাচ্ছে যে, এই মূর্তি গুলো বিজয়নগর সাম্রাজ্যের পর থেকে ওখানে আছে। আর এই মূর্তি গুলো ১৬ অথবা ১৭ শতাব্দীর।

Leave a Reply

Close
Close