টাইমলাইনবিনোদন

লকডাউনের মাঝেই প্রয়াত হলেন মিঠুন চক্রবর্তীর বাবা, শেষকৃত‍্যে যোগ দিতে বেঙ্গালুরু থেকে মুম্বই পাড়ি অভিনেতার

বাংলাহান্ট ডেস্ক: লকডাউনের মধ‍্যেই শোকের ছায়া মিঠুন চক্রবর্তীর (Mithun chakrabarty) পরিবারে। প্রয়াত হলেন অভিনেতার বাবা (father) বসন্ত কুমার চক্রবর্তী। গতকাল অর্থাৎ মঙ্গলবার সন্ধ‍্যায় প্রয়াত হন তিনি। তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৫ বছর।
সংবাদ মাধ‍্যম সূত্রে খবর। মুম্বইয়ের বাড়িতে শেষ নিঃশ্বাস ত‍্যাগ করেন মিঠুনের বাবা। সেখানে রয়েছেন মিঠুনের বড় ছেলে মিমো। কিন্তু অভিনেতা নিজে রয়েছেন বেঙ্গালুরুতে। জানা গিয়েছে, লকডাউনের আগেই শুটিংয়ের কাজে বেঙ্গালুরু গিয়েছিলেন মিঠুন। হঠাৎ লকডাউন ঘোষিত হওয়ায় সেখানেই আটকে পড়েন।


সূত্রের খবর, স্থানীয় প্রশাসনের অনুমতি নিয়ে নিজের গাড়ি করে মঙ্গলবার রাতেই মুম্বইয়ের উদ্দেশ‍্যে রওনা দেন মিঠুন। এই খবর প্রকাশ‍্যে আসতেই সিনেপাড়াতেও নেমে আসে বিষাদের ছায়া। টুইট বার্তায় শোক প্রকাশ করেন অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত। তিনি লেখেন, ‘মিঠুন দা, তোমার বাবার আকস্মিক প্রয়ানে আমি শোকস্তব্ধ। ওনার আত্মার শান্তি কামনা করি।’

জানা যায় গৌরাঙ্গ চক্রবর্তী ওরফে এখনের মিঠুনের বাবা বসন্ত কুমার চক্রবর্তী বেশ রাশভারী মানুষ ছিলেন। ক‍্যালকাটা টেলিফোনসে চাকরি করতেন তিনি। মা শান্তিময়ী দেবী গৃহবধূ। মিঠুনই সবথেকে বড় সন্তান। আরও তিন ছোট বোন রয়েছে অভিনেতার।

তরুণ বয়সে নকশালবাদী কাজকর্মের সঙ্গে জড়িয়ে পড়েছিলেন মিঠুন। সেখান থেকে তাঁকে বের করে আনার জন‍্য মুম্বইতে পাঠিয়ে দেন তাঁর বাবা। পরে মুম্বই ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন ইনস্টিউট অফ ইন্ডিয়া থেকে অভিনয়ে স্নাতক হন মিঠুন। তারপর বলিউডেই নিজের কেরিয়ার তৈরি করেন তিনি। তবে এই কেরিয়ার বেছে নেওয়াতে বেশ আপত্তি ছিল তাঁর বাবার। তাও বিভিন্ন সময়ে মিঠুনের পাশে দাঁড়িয়েছেন তিনি।

Back to top button