টাইমলাইনভারত

বড় খবরঃ লকডাউনের মধ্যে দেশের আরও পাঁচটি রাজ্যে চালু হল ‘এক দেশ এক রেশন কার্ড”, নেই পশ্চিমবঙ্গের নাম!

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ কেন্দ্রের মোদী সরকার (Modi Government) ‘ওয়ান নেশন ওয়ান রেশন কার্ড” (One Nation One Ration Card) যোজনা অনুযায়ী শুক্রবার বড় ঘোষণা করল। কেন্দ্র সরকার দেশের আরও পাঁচটি রাজ্যকে এই যোজনার সাথে যুক্ত করে দিলো। বিহার, উত্তর প্রদেশ, পাঞ্জাব, হিমাচল প্রদেশ আর দমন-দিউ এবার ‘ওয়ান নেশন ওয়ান রেশন কার্ড” যোজনার সুবিধা ভোগ করতে পারবে। কেন্দ্র সরকার ১লা জানুয়ারি ২০২০ তে মোট ১২ রাজ্যকে এই যোজনার সাথে যুক্ত করেছিল। এবার মোট ১৭ রাজ্য এই প্রকল্পের আওতায় চলে এলো।

কেন্দ্রীয় খাদ্য এবং উপভোক্তা মন্ত্রী রামবিলাস পাসওয়ান (Ram Vilas Paswan) শুক্রবার ট্যুইট করে এই কথা জানান। কেন্দ্র সরকার ‘ওয়ান নেশন ওয়ান রেশন কার্ড” যোজনাকে আগামী ১লা জুন থেকে গোটা দেশে লাগু করার ঘোষণা করে রেখেছে। পাসওয়ান জানান, ১২ টি রাজ্য প্রথম থেকেই এই যোজনা লাগু করে রেখেছে। আর এবার আরও পাঁচটি রাজ্যকে এই যোজনার আওতায় আনা হল।

আপনাদের জানিয়ে দিই, এই যোজনা লাগু হওয়ার পর যেকোন ব্যাক্তি দেশের যেকোন রাজ্য থেকে রেশন তুলতে পারবে। এক রাষ্ট্র, এক রেশন কার্ড যোজনা ১লা জুন ২০২০ থেকে শুরু হবে। এই যোজনায় পুরনো রেশন কার্ড গুলোকেও বৈধ মানা হবে। দেশের ১২ টি রাজ্য, অন্ধ্র প্রদেশ, তেলেঙ্গানা, গুজরাট, মহারাষ্ট্র, হরিয়ানা, রাজস্থান, কেরল, কর্ণাটক, মধ্য প্রদেশ, গোয়া, ঝাড়খণ্ড, আর ত্রিপুরায় এক দেশ, এক রেশন কার্ডের সুবিধা শুরু হয়ে গেছে।

এই স্কিম অনুযায়ী, কাউকেই নতুন করে রেশন কার্ড বানাতে হবে না। ১২ রাজ্যে ১লা জানুয়ারি থেকে লাগু হয়ে যাওয়া এই যোজনা মোদী সরকারের উচ্চাভিলাষী পরিকল্পনার মধ্যে একটি। এই যোজনা অনুযায়ী গোটা দেশের পিডিএস ধারকরা দেশের যেকোন রাজ্য আর রেশন দোকান থেকে তাদের রেশন তুলতে পারবে।

আপনাদের জানিয়ে দিই, পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী আগেই এই প্রকল্প নিয়ে অসহম পোষণ করেছে, সেই জন্য এখনো বাংলায় এই প্রকল্প লাগু হয়নি।

Back to top button