আন্তর্জাতিকটাইমলাইন

মানস সরোবরের নতুন রাস্তা নিয়ে খুশি নয় নেপাল, সীমা নিয়ে করল অসন্তোষ প্রকাশ

বাংলাহান্ট ডেস্ক : ভারত(India) শুক্রবার কৈলাশ মানসরোভর (Manas Sarovar) যাত্রার জন্য লিপুলেখ-ধরচুলা রুটের উদ্বোধন করে। কিন্তু শনিবার এটিকে একতরফা কার্যক্রম বলে আপত্তি তোলে নেপাল। অন্য দেশের সীমান্তে কোনও ধরণের কার্যকলাপ এড়ানো উচিত ভারতের। এর আগেও আপত্তি তুলেছিল নেপাল আর এদিন পুনরায় এই বিষয়ে আপত্তি জানায় নেপাল।

মহাকালী নদীর পূর্ব পুরো অঞ্চল নেপাল সীমান্তের মধ্যে পড়ে এমনই দাবি করেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রক । এদিন এই বিষয়ে নেপাল এইভাবে অসন্তুষ্টি প্রকাশ করেছে। ভারতের মানচিত্রে কালাপাণি, লিপুলেখ এবং লিম্পিয়াধুরা দেখানোর বিষয়ে তারা জানান দেয় যে কোনোভাবেই তাড়াতাড়ি এই অন্যায় মেনে নেবে না। আর এই কারণে নেপাল আর ভারতের সম্পর্কে চির ধরছে। নেপালের এই মনোভাব দুই দেশের মধ্যে তিক্ত বাড়াচ্ছে বলে মনে হচ্ছে।

নেপাল এই প্রসঙ্গে ভারতকে জানিয়েছে 

অবশ্য এপ্রসঙ্গে নেপাল জানায়, “এই একতরফা কার্যক্রম দু’দেশের প্রধানমন্ত্রীর মধ্যকার আলোচনা থেকে সীমান্ত অঞ্চল সমাধানের পরিপন্থী। ১৮১৬এর সুগৌলি চুক্তি অনুসারে, মহাকালী নদীর পুরো পূর্ব নেপাল অঞ্চলে পড়ে। এইটা জানানো হয়েছে “।

বিদেশ মন্ত্রক নেপালের প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে যা বলেছে 

বিদেশ মন্ত্রক নেপালের প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়েছে বলেন , আমরা এখন কেবল এই রুটে বিল্ডিং করে তীর্থযাত্রী, স্থানীয় মানুষ এবং ব্যবসায়ীদের জন্য ট্র্যাফিকের সুবিধা দিয়েছি। লিপুলেক আমাদের সীমান্তবর্তী অঞ্চলে পড়ে এবং লিপুলেক রুটের আগেই মানসারোভর দেখা হয়েছে।আর এই মুহূর্তে করোনার চূড়ান্ত  পরিস্থিতি নিয়ে ভারত নেপালের সাথে গোপন স্তরের আলোচনা স্থগিত করেছে।

Back to top button