টাইমলাইনভারত

বাবা-ছেলে উভয়েই রেলকর্মী! কাজের মাঝে দুই ট্রেন পাশাপাশি আসতেই ফ্রেমবন্দি বিরল মুহূর্ত

বাংলা হান্ট ডেস্ক: রোজ কতকিছুই না ভাইরাল হয় নেটমাধ্যমে! মূলত, ভাইরাল হওয়া ওই পোস্টগুলিতে এমন কিছু দৃশ্য থাকে যা সচরাচর চোখে পড়েনা। পাশাপাশি, ভিডিও বা ছবির মাধ্যমেই সেই দৃশ্যগুলি ফুটে ওঠে। তবে, সেগুলির মধ্যে এমন কিছু পোস্ট থাকে যা ছুঁয়ে যায় সকলের মন। সম্প্রতি ঠিক সেইরকমই একটি ছবি রীতিমতো “সুপারহিট” হয়েছে নেটমাধ্যমে।

সাধারণত, আমাদের প্রত্যেকের জীবনেই এমন কিছু মুহূর্ত সামনে আসে যেগুলির গভীরতা কার্যত ভাষায় প্রকাশ করা অসম্ভব হয়ে ওঠে। আবেগে ভরপুর ওই মুহূর্তগুলি এক কথায় হয় অনবদ্য। আর সেই মুহূর্তের ছবিই যদি ফ্রেমবন্দি করা যায় তাহলে তা থেকে যায় সারাজীবন। কারণ, ওই ছবি দেখলেই ফের ফিরে যাওয়া যায় সেই সময়ে। সম্প্রতি ঠিক সেইরকমই এক সুন্দর মুহূর্তের ছবি সামনে এসেছে নেটমাধ্যমে। যেখানে দেখা গিয়েছে এক বাবা এবং তাঁর ছেলেকে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বর্তমান সময়ে আমরা সকলেই সোশ্যাল মিডিয়ায় সময় কাটাতে ভালোবাসি। কারণ বর্তমান গতিশীল দুনিয়ায় সোশ্যাল মিডিয়ার প্ল্যাটফর্ম গুলিতে প্রতি মুহূর্তের আপডেটের পাশাপাশি পাওয়া যায় বিভিন্ন ভাইরাল হওয়া সব পোস্ট। তাদের মধ্যেই এমন কিছু পোস্ট থাকে যা রীতিমতো আবেগাপ্লুত করে দেয় সবাইকে। পাশাপাশি ফুটিয়ে তোলে কিছু চিরন্তন সম্পর্কের অনাবিল সৌন্দর্যও। বর্তমান ছবিটিতেও তার কোনো ব্যতিক্রম হয়নি।

কি দেখা গিয়েছে ছবিটিতে?
সম্প্রতি ভাইরাল হওয়া ওই ছবিটি দেখা গিয়েছে যে, কর্মব্যস্ততার মাঝেই বাবার সঙ্গে সেলফি তুলছেন ছেলে। মূলত, তাঁরা দু’জনেই রেলকর্মী হিসেবে নিযুক্ত। বাবা রেলের গার্ড পদে কর্মরত থাকার পাশাপাশি, ছেলে কাজ করছেন টিকিট পরীক্ষক হিসেবে। এমতাবস্থায়, দু’টি পৃথক ট্রেনে ডিউটি পড়েছিল তাঁদের।

এদিকে, কাকতালীয় ভাবে, দু’জনের ট্রেনই একই সময়ে পরস্পরের বিপরীত মুখে যাচ্ছিল। যার ফলে বাবা যে ট্রেনে ছিলেন, সেই ট্রেনের গার্ডের কামরা, আর ছেলে যে কামরায় ছিলেন সেই কামরা কাছাকাছি আসতেই রীতিমতো চলন্ত ট্রেন থেকে বাবার সঙ্গে অত্যন্ত বিরল এবং অমূল্য এই মুহূর্তটিকে ফ্রেমবন্দি করতে ভোলেননি টিকিট পরীক্ষক ছেলে।

এমতাবস্থায়, এই ছবিটিই নেটমাধ্যমে সামনে আসার পর তা দ্রুত গতিতে ভাইরাল হতে শুরু করেছে। পাশাপাশি কর্মক্ষেত্রে বাবা-ছেলের এহেন নিজস্বী দেখে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন নেটিজেনরাও। এছাড়াও, ছবিটিতে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে লাইকের সংখ্যা। এখনও পর্যন্ত প্রায় ৭৬ হাজার জন লাইক করেছেন ছবিটি। এদিকে, ছবিটির পরিপ্রেক্ষিতে নিজেদের প্রতিক্রিয়াও জানিয়েছেন নেটাগরিকরা। এই প্রসঙ্গে একজন লিখেছেন, “এটা সত্যিই দুর্দান্ত একটি মুহূর্ত।” পাশাপাশি আরেকজন লিখেছেন, “এই সেলফি হল বিশ্বের সবচেয়ে মূল্যবান সেলফি।” এক কথায়, এই ছবিটি জিতে নিয়েছে সকলের মন।

Related Articles

Back to top button