fbpx
টাইমলাইনভাইরাল

ভাইরাল ভিডিও: দুধে-আলতায় পা দিয়ে, শঙ্খ-উলুধ্বনি দিয়ে বরন নবজাত কন্যাসন্তানকে

বাংলাহান্ট ডেস্ক: দেশে নারী সুরক্ষা আজ প্রশ্নের মুখে এসে দাঁড়িয়েছে। নির্ভয়া, আসিফা, প্রিয়াঙ্কা রেড্ডি, প্রমীলা বর্মন একের পর এক নাম প্রতিদিন উঠে আসে সংবাদ শিরোনামে। কিন্তু তাঁদের কাউকেই বাঁচাতে পারিনি আমরা। এই যুগে এসেও অনেক ঘরে কন্যাসন্তান জন্মানোটাকে অবাঞ্ছিত বলে ধরা হয়। বহু কন্যাভ্রূণ পৃথিবীর আলোও দেখতে পায় না। মায়ের গর্ভেই হত্যা করা হয় তাদের। তবে একদিকে এইসবই যেমন নিষ্ঠুর বাস্তব, তেমনই অন্যদিকে এমন অনেক মানুষই আছে যারা পুরুষ ও নারীর মধ্যে কোনও ভেদাভেদে বিশ্বাস রাখেন না। তাদের চোখে দুজনই সমান। অনেক ঘরেই কন্যাসন্তানকে সসম্মানে বাড়ির লক্ষ্মী রূপে ঘরে নিয়ে আসা হয়।

সম্প্রতি প্রকাশ্যে এসেছে এমনই এক বাড়ির কাহিনি। হাসপাতাল থেকে ফিরে প্রথমবার নিজের বাড়িতে প্রবেশ করতে চলেছে বাড়ির ছোট্ট অতিথি। নবজাত কন্যাসন্তানকে রীতিমতো শাঁখ বাজিয়ে, উলুধ্বনি দিয়ে নতুন বৌয়ের মতোই বরন করে তোলা হল বাড়িতে। নতুন অতিথির আগমনে সুন্দর করে সাজানো হয়েছে পুরো বাড়ি, প্রবেশদ্বার। রয়েছে বেলুন, ফুল, আলো। ছোট্ট মানুষটা নিজেও তোয়ালে দিয়ে বেশ করে জড়ানো।

সন্তান কোলে মা দরজায় এসে দাঁড়াতেই বেলুন থেকে ঝড়ে পড়ল ফুলের ঝর্না। ছোট্ট পায়ে ঘটি ভর্তি চাল উলটে দিল নবজাত। সামনেই থালায় রাখা ছিল দুধ আলতা। সেখানে পা ডুবিয়ে কাপড়ে ছোট্ট পায়ের ছাপ দেওয়া হল। এবার মায়ের পালা। ফুল বিছানো পথে হেঁটে সন্তানকে নিয়ে ঘরে ঢুকে গেলেন মা। সোশ্যাল মিডিয়ায় ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়ে গিয়েছে এই ভিডিও। নেটিজেনরা সাধুবাদ জানিয়েছেন এই পরিবারকে।

কিছুদিন আগেই প্রকাশ্যে এসেছিল এমনই আরেকটি ভিডিও। সেখানে দেখা গিয়েছিল ছোট্ট মেয়েকে ঠাকুরের আসনে বসিয়ে পুজো করছেন বাবা-মা। ভাইরাল হয়েছিল সেই ভিডিও।

Back to top button
Close
Close