টাইমলাইনভারত

রাত্রে ঘুম হয়নি, খুব ঘুম পাচ্ছে বলে ট্রেন চালাতেই গেলেন না চালক, ৫ ঘন্টা ধরে স্টেশনে দাঁড়িয়ে যাত্রীরা

বাংলাহান্ট ডেস্ক : কাজের চাপে ঘুম হয়নি রাতে। তাই ট্রেন থামিয়েই ঘন্টা দুয়েক ঘুমিয়ে নিলেন চালক। যার জেরে গন্তব্যে প্রায় ৫ ঘন্টা লেটে পৌঁছালো ট্রেনটি। অভূতপূর্ব এই ঘটনাটি ঘটেছে গত ২১ জানুয়ারি, উত্তরপ্রদেশের শাহজাহানপুর রেল স্টেশনে।

জানা যাচ্ছে যথেষ্ট ঘুম না হওয়ায় ট্রেন চালাতে অস্বীকার করেন বালামউ প্যাসেঞ্জার ট্রেনটির এক চালক। যাত্রী সমেত ট্রেন থামিয়ে প্রায় ২ ঘন্টা ঘুমোনোর পর তবেই আবার কাজে ফেরেন তিনি। বালামউ প্যাসেঞ্জার ট্রেনটি ৩ ঘন্টা লেটে ২১ জানুয়ারি রাত প্রায় ১ টা নাগাদ শাজাহানপুর স্টেশনে পৌঁছায়। এই স্টেশনেই চালক বদল হওয়ার কথা ছিল ট্রেনটির।

যে চালক বালামউ থেকে ট্রেনটি চালাচ্ছিলেন তাঁর পরদিন সকালে ফিরে যাওয়ার কথা ছিল বালামউতে। কিন্তু গভীর রাতে চালক বদল হওয়ায় ঠিকমত ঘুমোনোর সময়ই পাননি ওই চালক। যার জেরেই সকাল ৭ টায় শাহজাহানপুর স্টেশন থেকে ট্রেনটি চালাতে অস্বীকার করেন তিনি। অবশেষে ঘন্টাদুয়েক ঘুমের পর ট্রেনটি ছাড়ে সকাল সাড়ে ৯ টা নাগদ। তিনি ট্রেনটিকে রোজা স্টেশন অবধি নিয়ে যান, সেখান থেকে বালামউ নিয়ে যান অন্য আরেক চালক।

ট্রেন চালানোর জন্য চালকদের পর্যাপ্ত ঘুম এবং বিশ্রাম অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি জিনিস। ভীষণই সতর্কতা এবং মনোযোগের সঙ্গে করতে হয় ট্রেন চালনা। তাই এই চালক যে যাত্রীদের জীবন নিয়ে ঝুঁকি না নিয়ে উচিত কাজই করেছেন, তা বলাই বাহুল্য। ঘটনাটি প্রসঙ্গে শাহজাহানপুর স্টেশনের স্টেশন মাস্টার জেপি সিং জানিয়েছেন, রাতে ঘুম না হওয়ায় ট্রেনটি চালাতে চাননি ওই চালক। কিন্তু পরে অল্পক্ষণ বিশ্রাম করেই ট্রেনটি চালাতে শুরু করেন তিনি।

Related Articles

Back to top button