টাইমলাইনবিনোদন

অষ্টমীতে অঞ্জলি, বিজয়াতে শুভেচ্ছা জ্ঞাপন, ফের ধর্ম তুলে মৌলবাদীদের আক্রমণ নুসরত জাহানকে!

বাংলাহান্ট ডেস্ক: বিজয়া দশমীর শুভেচ্ছা জানিয়ে ফের মৌলবাদীদের আক্রমণের শিকার হলেন তৃণমূল (tmc) সাংসদ তথা অভিনেত্রী নুসরত জাহান (nusrat jahan)। অষ্টমীতে স্বামীর সঙ্গে অঞ্জলি দিয়ে এক দফা সমালোচনা কটুক্তির শিকার হয়েছেন তিনি। এবার ফের পুনরাবৃত্তি একই ঘটনার।

আজ মন খারাপের বিজয়া দশমী। চার দিন ব‍্যাপী দূর্গা পুজোর আজ শেষ দিন। তাই স্বাভাবিক ভাবেই সকলের মন আজ কাঁদছে। সোশ‍্যাল মিডিয়ায় অনুরাগীদের উদ্দেশে বিজয়ার শুভেচ্ছা জানাচ্ছেন তারকারা। এই তালিকায় রয়েছেন নুসরতও।


হাতে প্রদীপ নিয়ে দূর্গা প্রতিমার সামনে নিজের একটি ছবি শেয়ার করে বিজয়ার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন অভিনেত্রী। আর এতেই যত গণ্ডগোল। অষ্টমীর মতোই ফের মৌলবাদীদের রোষের আগুনে পড়েছেন নুসরত। প্রশ্ন উঠেছে তাঁর ধর্ম নিয়ে। তিনি যদি অহিন্দু হন তাহলে কোন সাহসে হিন্দু উৎসবে যোগদান করছেন? উঠেছে এমন প্রশ্নও। আবার অনেকেই এই সাহসিকতার জন‍্য কুর্নিশও জানিয়েছেন তৃণমূল সাংসদকে।

তবে প্রতিবারের মতো নুসরত এবারেও কোনো আলোচনা সমালোচনারই কোনো জবাব দেননি। সব ধর্মের উৎসবেই অনুরাগীদের উদ্দেশে শুভেচ্ছা জানান তিনি। গত বারের পুজোতেও তিনি স্পষ্ট জানিয়েছিলেন, অনেকদিন ধরেই অষ্টমীর অঞ্জলি দিয়ে আসছেন তিনি। স্বামী নিখিলকে নিয়ে রথের দড়ি টানা, জন্মাষ্টমী পালন, ইদে শুভেচ্ছা জানানো সবই করেন নুসরত।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি হাইকোর্টের নির্দেশ অমান‍্য করার অপরাধে আইনি সমস‍্যার মুখে পড়েছেন তৃণমূল সাংসদ নুসরত জাহান, পরিচালক সৃজিত মুখোপাধ‍্যায় ও আরেক তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র। অষ্টমীতে নিউ আলিপুরের সুরুচি সঙ্ঘের পূজা মণ্ডপে প্রবেশ করে অঞ্জলি দেন তৃণমূল সাংসদ নুসরত জাহান, স্বামী নিখিল জৈন, পরিচালক সৃজিত মুখোপাধ‍্যায় ও তাঁর স্ত্রী রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা এবং অপর তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র।

করোনা আবহে হাইকোর্টের তরফে প্রতিটি পুজো প‍্যান্ডালকেই কনটেনমেন্ট জোন নির্ধারিত করা হয়েছে। স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হয়েছে পুজো উদ‍্যোক্তা ও সদস‍্য ছাড়া অন‍্য কারোরই মণ্ডপে প্রবেশের অনুমতি নেই। তা সত্ত্বেও জনপ্রতিনিধি হয়ে নুসরত, মহুয়ার এমন কাজে ক্ষোভের আগুন ছড়িয়ে পড়েছে বিভিন্ন মহলে।

Back to top button