টাইমলাইনআন্তর্জাতিক

বকেয়া টাকা না মেটানোর জের, পাকিস্তানের এয়ারলাইন্সকে নিজেদের সীমায় ঢুকতে দিল না রাশিয়া

বাংলাহান্ট ডেস্ক : ভয়ংকর আর্থিক সংকটে পাকিস্তান (Pakistan)। ক্রমাগত বাড়ছে পেট্রোল, ডিজেল সহ প্রত্যেকটি নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের মূল্য। বাড়ছে বিদ্যুৎ বিলও। রাত নটার পর অন্ধকার করে দেওয়া হচ্ছে রাজধানী ইসলামাবাদকেও। পরিস্থিতি এতটাই খারাপ যেকোনও দিন দেউলিয়া ঘোষণা করবে পাকিস্তান সরকার। এরই মধ্যে আন্তর্জাতিক স্তরে আরও একবার অপমানিত হল ভারতের এই প্রতিবেশি রাষ্ট্রটি।

আন্তর্জাতিক আকাশ পথের নিয়ম অনুসারে কোনও রাষ্ট্রের আকাশ সীমার মধ্যে দিয়ে উড়োজাহাজ নিয়ে গেলে সেই দেশকে কর দিতে হয়। কিন্তু পাকিস্তানের অবস্থা এতটাই খারাপ যে সেই টাকা দেওয়ারও সামর্থ তার নেই। রাশিয়ার কাছে বাকি পরেছে এক বিরাট অংকের টাকা। এই টাকা আর্থিক সংকটের সঙ্গে লড়াই করে বেঁচে থাকা একটা দেশের পক্ষে এই মুহুর্তে দেওয়া সম্ভব নয়। আর এবার এই অক্ষমতার চরম মাশুল দিল পাকিস্তান।

পাকিস্তানের জন্য রাশিয়ার আকাশ হলো বন্ধ। রাশিয়া ঘোষণা করেছে পাকিস্তান এয়ারলাইনস-র কোনও প্লেন যেন রাশিয়ার আকাশ সীমায় না প্রবেশ করে। ঘটনাটি ঘটে ১৭ জুন। পাকিস্তান এয়ারলাইনসের উড়জাহাজ যখন ইসলামাবাদ থেকে টরেন্টো যাচ্ছিলো তখন রাশিয়া তার আকাশ সীমা ব্যবহারের ছাড়পত্র দেয় নি। অবশেষে উপায়ন্তর না দেখে অনেকটা ঘুরে ইউরোপের আকাশ ব্যাবহার করে টরেন্টো পৌঁছায়।

জানা যাচ্ছে, পিআইএ-র উড়োজাহাজ পিকে ৭৮১-র ২৫০ বেশি যাত্রী ছিলো। যদিও পাকিস্তান এয়ারলাইলসের আধিকারিকের বক্তব্য রাশিয়ার বিদেশ থেকে আমদানি অনেকটা কমেছে। আন্তর্জাতিক প্রতিবন্ধকতার জন্য অনেকটা খারাপ হয়েছে রাশিয়ার অর্থনৈতিক অবস্থা। তাই এসব করে টাকা রোজগার করতে চাইছে। তবে রাশিয়ার এই পদক্ষেপে খুশিই হবে ভারত। ভারত যত আমেরিকার দিকে ঝুঁকছিল ততই রাশিয়ার সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হচ্ছিল পাকিস্তান। রাশিয়ার এই সিদ্ধান্তের পর সেই ঘনিষ্ঠতায় বেশ কিছুটা বাধা পড়বে বলেই মনে করছে আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞ মহল।

Related Articles

Back to top button