টাইমলাইনআন্তর্জাতিক

ব্রিটেনের সাধারণ নির্বাচনে হারের মুখ দেখল পাকিস্তান পন্থী লেবার পার্টি, ফের প্রধানমন্ত্রী হলেন বরিস জনসন

শুক্রবার ব্রিটেনে (Britain) সাধারণ নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা হল। প্রাথমিক গণনায় ব্রিটেনের বোরিস জনসন (Boris Johnson) এর কনজারভেটিভ পার্টি (Conservative Party) সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়ে গেছে। বোরিস জনসনের দল ৩২৬ টি আসন পেয়েছে। আরেকদিকে ব্রিটেনের প্রধান প্রতিপক্ষি দল লেবার পার্টি (Labour Party) ২০০ টি আসন পেয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (Narendra Modi) কনজারভেটিভ পার্টিকে জয়ের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ট্যুইট করে লেখেন, বোরিস জনশন এই জয়ের জন্য অনেক অনেক শুভেচ্ছা জানাই। আমি ওনাকে শুভকামনা জানাই আর ভারত ব্রিটেনের সুসম্পর্কের জয় একসাথে কাজ করার আহ্বান জানাই। ভোট প্রক্রিয়া শেষ হওয়ার পর এক্সিট পোল অনুযায়ী, ৬৫০ টি আসনের সংসদে বোরিস জনসনের কনজারভেটিভ পার্টি কে ৩৬৮ টি, বিরোধী দল লেবার পার্টিকে ১৯১, স্কটিশ ন্যশানাল পার্টিকে , লিবেরাল ডেমোক্র্যাটিক ১৩ টি আসন পাবে বলে দেখানো হচ্ছিল।

আপনাদের জানিয়ে রাখি, ব্রিটেনের প্রধান প্রতিপক্ষ দল লেবার পার্টি জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার চরম বিরোধিতা করেছিল। তাঁরা পাকিস্তানের পাশে দাঁড়িয়ে ভারতকে আক্রমণ করতেও ছারেনি। লেবার পার্টির প্রধান জেরেমি কর্বিন বলেছিল ভারত জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে মানবাধিকার লঙ্ঘন করেছে। ভারতের উচিৎ এটা এখুনি প্রত্যাখ্যান করা।

আরেকদিকে ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী বোরিস জনসন ভোটের আগে ঘোষণা করেছিলেন যে, ব্রিটেনে থেকে ভারত আর হিন্দু বিরোধী কার্যকলাপ তিনি সহ্য করবেন না। যারা এই কাজ করবে, তাঁদের উপযুক্ত শাস্তি দেওয়ার কথাও ঘোষণা করেছিলেন তিনি। আবার তিনি ভোটের আগে হিন্দু মন্দিরে পূজা দিয়েছিলেন।

Back to top button