টাইমলাইনভারতরাজনীতি

ওমর আবদুল্লা ও মেহেবুবা মুফতির উপর লাগানো হলো PSA, হতে পারে ৩ মাসের জেল

এবার পাবলিক সেফটি অ্যাক্ট বা পিএসএ লাগু করা হল জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ওমর আবদুল্লা এবং পিপল ডেমোক্র্যাটিক পার্টির অধ্যক্ষ্য মেহবুবা মুফতির উপর। বৃহস্পতিবার এই কাজের পরে এই দুই নেতাকে বিনা ট্রায়ালে প্রায় ৩ মাস অবধি জেলে রাখার সিদ্ধান্ত নিতে পারে ভারত। তার মধ্যেই এই দুজন বাদে বাকি আরও ৩ নেতার বিরুদ্ধেও কড়া পিএসএ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। সংবাদ মাধ্যম ‘পিটিআই’ এর রিপোর্ট অনুযায়ী, এই তিন নেতার মধ্যে, এনসি নেতা এবং পূর্ব মুখ্যমন্ত্রী আলি মহম্মদ সাগর , প্রাক্তন বিধায়ক বশির মহম্মদ উইরি, এবং মেহবুবা মুফতির মামা সরতাজ মদনির নাম রয়েছে।

সুত্রের খবর, নরেন্দ্র মোদীর এনডিএ সরকারের আদেশে যে আল্গাওবাদী নেতাদের বিগত ২০১৯ এর ৫ই আগস্ট নাগাদ গ্রেফতার করা হয়েছিল, তাদের হাজতবাসের মেয়াদ বৃহস্পতিবার পূর্ণ হয়েছে। এবং কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে এদের জেলহাজতের মেয়াদ বাড়ানোরও আর কোন রাস্তা নেই।

 কি এই পিএসএ-

এটি একটি আইন যা জম্মু ও কাশ্মীরে ১৯৭৮ সালে তৈরি করা হয়েছিল। এই আইনের অনুযায়ী, যেকোনো ব্যাক্তিকে গ্রেফতার ও মামলা না চালিয়েই সর্বাধিক ২ বছরের জন্য জেল হেফাজত দেওয়া যেতে পারে। এই আইনের ব্যবহার করে এর আগেও ওমর আব্দুল্লার পিতা এবং জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ফারুখ আব্দুল্লাকে গ্রেফতার করা হয়েছিল।

এছাড়াও জানানো হচ্ছে যে এই আইন ব্যাবহার করে ভারত সরকার প্রাক্তন আইএএস আধিকারিক এবং নেতা শাহ ফয়জলের উপর নজরদারি বাড়ানোর চেষ্টা করছে। আপাতত, ওমর আবদুল্লা, মেহবুবা মুফতি এবং শাহ ফয়জলকে সিআরপিসি ধারা ১০৭-র অধীনে গ্রেফতার করা হয়েছে।

Related Articles

Back to top button