টাইমলাইনভাইরালভিডিওআন্তর্জাতিক

ভাঙাচোরা মূর্তিকে পুজো করছেন পুরোহিত, বাংলাদেশের ভাইরাল ভিডিও দেখে চোখে জল নেটিজেনদের

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ বাংলাদেশে ঘটে যাওয়া সাম্প্রতিক ঘটনা নিয়ে বিশ্ব জুড়ে ছিঃ ছিঃ রব উঠেছে। বিশেষ করে ভারত থেকে বাংলাদেশের এই ঘটনা নিয়ে চরম নিন্দা করা হয়েছে। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী থেকে শুরু করে ছোট, বড় রাজনৈতিক নেতারা এই ঘটনার প্রতিবাদে সর্ব হয়েছেন এবং ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখে হস্তক্ষেপের আবেদন জানিয়েছেন। অন্যদিকে বাংলাদেশের নোয়াখালীর ইস্কন মন্দিরে মৌলবাদীদের হামলার ঘটনা রাষ্ট্রসংঘ পর্যন্ত গিয়েছে। সংস্থার তরফ থেকে রাষ্ট্রসংঘের কাছে এই বিষয়ে হস্তক্ষেপের দাবি জানানো হয়েছে।

পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন জায়গায় বাংলাদের এই ঘটনা নিয়ে মানুষকে সরব হতে দেখা গিয়েছে। এমনকি দুর্গা পুজোর দিনে সন্তোষ মিত্র স্কোয়ারে বাংলাদেশের হিন্দু নির্যাতনের ঘটনায় প্ল্যাকার্ড হাতে কচিকাচা থেকে বয়স্কদের দাঁড়িয়ে থেকে প্রতিবাদ করতে দেখা গিয়েছে। অন্যদিকে, বাংলার বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের এই ঘটনা নিয়ে কলকাতায় বাংলাদেশের হাইকমিশনের অফিস ঘেরাওয়ের কর্মসূচি ডাকা হয়েছে।

আর এরই মধ্যে বাংলাদেশ থেকে এক ভিডিও ভাইরাল হচ্ছে, যা এপার বাংলার মানুষদের চোখে জল এনে দিচ্ছে। ভাইরাল ওই ভিডিওতে মৌলবাদীদের হাতে ভাঙচুর হওয়া দুর্গা মণ্ডপে বসে পুরোহিতকে টুকরো টুকরো দেবী মূর্তিকে পুজো করতে দেখা গিয়েছে। বিশ্ব শান্তি, হিন্দুদের রক্ষার্থে মা দুর্গার কাছে কাতর আবেদনও করতে দেখা যাচ্ছে ওই পুরোহিতকে। বাংলাদেশ থেকে ভাইরাল হওয়া ওই ভিডিও নেতিজেনদের চোখে জল এনে দিয়েছে।

https://twitter.com/LettersfromBan1/status/1449292557704306691?ref_src=twsrc%5Etfw%7Ctwcamp%5Etweetembed%7Ctwterm%5E1449292557704306691%7Ctwgr%5E%7Ctwcon%5Es1_c10&ref_url=https%3A%2F%2Findiarag.in%2Fviral-video-of-durga-puja-from-bangladesh%2F

বলে রাখি, বাংলাদেশে হিন্দু ও মন্দির এবং দুর্গা মণ্ডপের উপর হামলার ঘটনায় এখনও পর্যন্ত দুজন সংখ্যালঘু প্রাণ হারিয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। এছাড়াও বেশ কয়েকজন নিখোঁজ হয়েছেন। বাংলাদেশের সংবাদমাধ্যম অনুযায়ী, দেশের ৫০টি মন্দির, মণ্ডপে হামলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। ১৫০ জনের বেশি সংখ্যালঘু আহত হয়েছেন এই ঘটনায়। দেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দোষীদের কড়া শাস্তি দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন।

Related Articles

Back to top button