টাইমলাইনবিধানসভা নির্বাচনবিনোদনরাজনীতি

বিজেপিতে যোগ দিয়েই প্রার্থী হওয়ার ইচ্ছাপ্রকাশ পায়েলের, বললেন বাংলার হারানো সংষ্কৃতি ফেরাতে চাই

বাংলাহান্ট ডেস্ক: আজই রাজনীতিতে যোগ দিয়েছেন পায়েল সরকার (payel sarkar)। বিজেপিতে (bjp) যোগ দিয়ে মানুষের জন‍্য কাজ করার অঙ্গীকার নিয়েছেন তিনি। বিধানসভা নির্বাচনের (election) আগে যখন একের পর এক তারকা রাজনীতির মঞ্চে পা রাখছেন বা দল বদলে চলে যাচ্ছেন অন‍্য দলে সেখানে পায়েলের বিজেপিতে যোগদান খুব বেশি চমকপ্রদ না হলেও নিঃসন্দেহে তাৎপর্যপূর্ণ।

উপরন্তু রাজনীতিতে একেবারে নতুন হওয়া সত্ত্বেও বিজেপিতে এসেই প্রার্থী হওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করলেন পায়েল। হেস্টিংসে এদিন বিজেপির নির্বাচনী দফতরে যোগদানের পরেই পায়েলকে ঘিরে ধরেন সাংবাদিকরা। প্রশ্নের উত্তরে অভিনেত্রী জানান, প্রার্থী হওয়ার ইচ্ছা অবশ‍্যই রয়েছে। তবে পরক্ষণেই একটু সামলে বলেন, এ বিষয়ে এখনো ভাবেননি। দলের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত।


এদিন পায়েল বলেন, বাংলার সব স্তরের মানুষ চায় বাংলার পুরনো ঐতিহ‍্য, সংষ্কৃতি আবার ফিরে আসুক। আমরা যাতে সকলে ভাল ভাবে থাকতে পারি। আরো সুন্দর জীবনযাপন করতে পারি সেই স্বপ্নটাই দেখিয়েছে বিজেপি। আর তার জন‍্য ইতিমধ‍্যেই কাজও শুরু করে দিয়েছেন তারা।

তবে রাজনীতিতে যোগ দেওয়ায় তাঁর অভিনয় কেরিয়ার কি কোনো ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে না? অভিনেত্রীর কথায়, সিনেমা মানুষকে বিনোদন দেওয়ার একটা মাধ‍্যম। আর রাজনীতি মানুষের জন‍্য কাজ করার। দুটো আলাদা মাধ‍্যম, দুটোর মধ‍্যে কোনো সংঘাত নেই।

পায়েল বলেন, “যেহেতু আমার আগে থেকেই একটা পরিচিতি আছে। মানুষের ভালবাসা আশীর্বাদ আমি পেয়েছি। আমার উচিত এই মুহূর্তে সেটা ফিরিয়ে দেওয়ার। মানুষ যদি ভাল থাকেন মানুষের জন‍্য যদি কাজ করতে পারি আমি খুব খুশি হব।”

এদিন জে পি নাড্ডার উপস্থিতিতে বিজেপিতে যোগ দেন পায়েল। হেস্টিংসে বিজেপির নির্বাচনী দফতরে রাজ‍্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ তাঁর হাতে দলীয় পতাকা তুলে দেন। ভোটের আগে বিজেপিতে যে আরো টলি তারকারা যোগ দিতে পারেন সেই জল্পনাও জিইয়ে রাখল পায়েলের এই যোগদান।

Back to top button