ভারত

২০০০ কোটি টাকার চোর অরবিন্দ কেজরীবাল, দিল্লীতে অলিতে গলিতে লাগানো হল পোস্টার

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ বিধানসভা নির্বাচনের আগে দিল্লীর রাজনৈতিক আবহাওয়া গরম হতে চলেছে। একদিকে সব দল নির্বাচনী প্রস্তুতিতে নেমে পড়েছে। আরেকদিকে নেতারা একে অপরের উপর আক্রমণ চালিয়ে যাচ্ছেন। বিরোধীরা লাগাতার মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীবালের উপর আক্রমণ শানিয়ে যাচ্ছে। আর সেই ক্রমেই শিরোমণি আকালি দলের (SAD)  বিধায়ক মঞ্জিন্দর সিং সিরসা (Manjinder singh Sirsa) আম আদমি পার্টি এবং দিল্লীর সরকারের উপর ২০০০ কোটি টাকার দুর্নীতির অভিযোগ আনেন। দিল্লীর সরকারের উপর ২০০০ কোটি টাকার দুর্নীতি অভিযোগ তুলে, SAD বিধায়ক মঞ্জিন্দর সিং সিরসা অরবিন্দ কেজরীবালকে (Arvind Kejriwal)) সবথেকে বড় চোর বলে দিল্লীতে পোস্টার লাগান।

SAD বিধায়ক মঞ্জিন্দর সিং সিরসা এর ওই পোস্টারে অরবিন্দ কেজরীবালকে সবথেকে বড় চোর বলে দেখানো হয়েছে। দিল্লীর অনেক এলাকাতেই এই পোস্টার দেখা যায়। বৃহস্পতিবার লাগানো এই পোস্টারে মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীবালের একটি কার্টুন এঁকে ওনাকে সবথেকে বড় চোর বলা হয়।

পোস্টারে লেখা হয় যে, নিজেকে সবথেকে বড় সত্যবাদী বলা মানুষটাই সবথেকে বড় চোর রুপে উঠে এলো। স্কুলের যেই ঘর গুলো পাঁচ লক্ষ টাকায় বানানো যায়, সেগুলোকে সবথেকে বড় চোর ২৫ লক্ষা টাকায় বানিয়েছে। অরবিন্দ কেজরীবালের বিরুদ্ধে ওই হোর্ডিং গুলোকে মান্ডি হাউস, পন্ত মার্গ সমেত কয়েকটি এলাকায় লাগানো হয়েছে।

এর আগে দিল্লী বিজেপির সভাপতি মনোজ তিওয়ারি আরটিআই তথ্য তুলে দিল্লী সরকারের উপর স্কুল বানানোর নামে ২০০০ কোটি টাকার দুর্নীতির অভিযোগ আনেন। তিওয়ারি অভিযোগ করে বলেন যে, দিল্লী সরকার স্কুলে ঘর বানানোর জন্য ২০০০ কোটি টাকা দিয়েছে। যেখানে সেই ঘর গুলো বানানোর জন্য ৮৯২ কোটি টাকা খরচ হয় মাত্র। এই কাজ দিল্লী সরকার ৩৪ টি কন্ট্রাকটর এর মাধ্যমে করে, সেই কন্ট্রাকটরদের মধ্যে অনেকেই শাসক দলের আত্মীয়।

Back to top button
Close