টাইমলাইনভারত

অবশেষে স্বস্তির খবর! পুজোর আগেই অনেকখানি কমলো সরিষা তেল সহ ৮ প্রকারের ভোজ্য তেলের দাম

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ পুজোর আগেই বড় সুখবর। খানিকটা কমলো ভোজ্য তেলের (edible oil) দাম। ভোজ্য তেলের উপর স্ট্যান্ডার্ড আমদানি শুল্ক কমানোর কারণেই, দামের এই পতন চোখে পরার মতন। উপভোক্তা মন্ত্রালয় সূত্রে খবর, ১৪ ই সেপ্টেম্বরের শেষ সপ্তাহে, আগের সপ্তাহের তুলনায় ২.৫০ শতাংশ দাম কমেছে।

দামের এই পতনে সরিষা, খেজুরসহ আট ধরনের ভোজ্য তেল ক্রেতাদের কিছুটা স্বস্তি মিলেছে। খুচরো বাজারে লিটারপিছু ভোজ্য তেলের দাম প্রায় চার থেকে পাঁচ টাকা কমে গিয়েছে।

উপভোক্তা মন্ত্রালয় সূত্রে খবর, গত কয়েক দিনে সরকার হোর্ডিং রোধসহ বেশ কয়েকটি পদক্ষেপ নিয়েছে সরকার, যাতে করে অভ্যন্তরীণ বাজারে সরবরাহ বাড়ানো যায়। যার কারণেই, ১৪ ই সেপ্টেম্বরের শেষ সপ্তাহ থেকে চিনাবাদাম তেল, সরিষার তেল, সবজি, সূর্যমুখী, খেজুর, নারকেল এবং তিলের তেলের পাইকারী দাম অনেকটাই কমে গিয়েছে।

জানা গিয়েছে, পাম তেলের পাইকারি দাম ২.৫% কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১২৩৪৯ টাকা প্রতি টন।
তিলের তেলের পাইকারি দাম ২.০৮% কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১২৩৪৯ টাকা প্রতি টন।
নারকেল তেলের পাইকারি দাম ১.৭২% কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে ২৩৫০০ টাকা প্রতি টন।
সূর্যমুখী তেলের পাইকারি দাম১.৩০% কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১৫৯৬৫ টাকা প্রতি টন।
চিনাবাদাম তেলের পাইকারি দাম ১.৩৮% কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১৬৮৩৯ টাকা প্রতি টন।
সর্ষে তেলের পাইকারি দাম ০.৯৭% কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১৬৫৭৩ টাকা প্রতি টন।
বনস্পতি তেলের পাইকারি দাম ০.৭১% কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১২৫০৮ টাকা প্রতি টন।

Related Articles

Back to top button