টাইমলাইনবিনোদন

বৈচিত্রে ঠাসা ৩৫ বছরের কেরিয়ার, বাংলার প্রথম ভ‍্যাম্পায়ার সিনেমাতেও হিরো হয়েছিলেন প্রসেনজিৎ!

বাংলাহান্ট ডেস্ক: ‘টোয়াইলাইট’ (Twilight) ছবির কথা কে না শুনেছে? অনেকেই দেখেও থাকবেন। ভ‍্যাম্পায়ার (Vampire), ওয়‍্যারউলফ এর মতো লোকগাথা নিয়ে আস্ত এক রোমহর্ষক সিরিজ বানিয়ে দিয়েছে হলিউড। বাহবাও পেয়েছে। কিন্তু খাঁটি বাংলাতেও যে একটা ভ‍্যাম্পায়ারের সিনেমা (Vampire Cinema) আছে তা কি জানেন? স্বয়ং টলিউডের ‘ইন্ডাস্ট্রি’ প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ‍্যায় (Prosenjit Chatterjee) অভিনয় করেছিলেন সেই ছবিতে।

বাংলা সাহিত‍্যে রক্তচোষা বাদুর বা ভ‍্যাম্পায়ার নিয়ে রোমহর্ষক গল্প বড় কম নেই। কিন্তু সিনেমা তুলনায় অনেক কম। এমনি একটি ছবি হল ‘নিশি তৃষ্ণা’। হরর ঘরানার এই ছবি মুক্তি পেয়েছিল ১৯৮৯ সালে। বাংলায় এখনো পর্যন্ত যেকটি ভূতের ছবি হয়েছে তার মধ‍্যে জনপ্রিয়তার দিক দিয়ে অগ্রণী ভূমিকা গ্রহণ করবে নিশি তৃষ্ণা।


ছবিটির পরিচালনা করেছিলেন পরিমল ভট্টাচার্য। মুখ‍্য চরিত্রে ছিলেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ‍্যায় ওরফে পল, মুনমুন সেন ওরফে শিমলি এবং শেখর চট্টোপাধ‍্যায়। বাংলায় এখনো পর্যন্ত সিনেপ্রেমীদের অন‍্যতম পছন্দের হরর ছবি নিশিতৃষ্ণা। বলা হয়, বাংলা ছবির জগতে এটাই নাকি প্রথম ভ‍্যাম্পায়ার সিনেমা।

প্রসঙ্গত, টলিউডে প্রসেনজিতের প্রথম অভিনীত ছবি ‘ছোট্ট জিজ্ঞাসা’। তখন অবশ‍্য শিশুশিল্পী হিসাবে অভিনয় করেছিলেন তিনি। নায়ক হিসাবে প্রসেনজিৎ প্রথম আত্মপ্রকাশ করেন ‘অমর সঙ্গী’ ছবির হাত ধরে। প্রায় ৩৫ বছর ধরে অভিনয় জগতে রয়েছেন প্রসেনজিৎ।

৩০ সেপ্টেম্বর ৬০ এ পা দিলেন বুম্বাদা। এদিনই মুক্তি পেয়েছে দেব ও তাঁর অভিনীত ছবি ‘কাছের মানুষ’। ককপিটের পর এই ছবিতেই ফের জুটি বাঁধলেন দুই সুপারস্টার। এরপর ‘প্রসেনজিৎ ওয়েডস ঋতুপর্ণা’ ছবিটি নিবেদন ক‍রবেন তিনি। সম্ভবত ছবিতে ক‍্যামিও চরিত্রে অভিনয়ও করতে পারেন তিনি এবং ঋতুপর্ণা।

Related Articles