টাইমলাইনবিনোদন

আদর করতে পারছেন না, দূর থেকেই দেখতে হচ্ছে ছেলেকে, বেজায় মন খারাপ রাজার

বাংলাহান্ট ডেস্ক: বাংলা টেলিভিশনের অন‍্যতম জনপ্রিয় জুটি রাজা গোস্বামী (raja goswami) ও মধুবনী গোস্বামী (madhubani goswami)। দীর্ঘদিনের বিবাহিত জীবনের পর সম্প্রতি নতুন বাবা মা হয়েছেন তাঁরা। রাজা মধুবনীর সংসার আলো করে এসেছে ছোট্ট ভদ্রলোক, কেশব। ছেলেকে ঈশ্বরের দান বলে মনে করেন মধুবনী। কৃষ্ণ ও শিবের নাম মিলিয়েই নাম রেখেছেন একরত্তির।

দু সপ্তাহ হয়ে গিয়েছে মা হয়েছেন মধুবনী। অভিনেত্রী জানিয়েছেন, এখন সারাটা দিন ছেলের দেখভাল করতেই কেটে যাচ্ছে তাঁর। কেশব আসায় অনেক বদলে গিয়েছেন রাজাও। আগের থেকে অনেক বেশি সময় নিয়ে সচেতন হয়ে উঠেছেন।


তবে মা হওয়ার পর থেকেই স্ত্রী ও ছেলের থেকে আলাদা ঘুমোতে হচ্ছে রাজাকে। কারণ শুটিংয়ের জন‍্য রোজই বাইরে বেরোতে হয় তাঁকে। তাই অতিরিক্ত সুরক্ষা নিয়ে তবেই ছেলেকে কোলে নিতে পারেন তিনি। এর আগে অন্তঃসত্ত্বাকালীন সময়েও মধুবনী জানিয়েছিলেন রাজার থেকে আলাদা শুচ্ছেন তিনি।

এবার নিজের ইনস্টা হ‍্যান্ডেলে একটি ছবি শেয়ার করেছেন রাজা। ছবিতে দেখা যাচ্ছে ছেলেকে কোলে নিয়ে আদর করছেন মধুবনী। তবে এই ছবিতেও ছেলের মুখ দেখাননি তিনি। তবে এখন দূর থেকেই ছেলেকে দেখতে হচ্ছে রাজাকে। করোনার ভয়ে খুব সাবধানেই ছেলেকে আদর করতে হচ্ছে তাঁকে।

ছবিটি শেয়ার করে রাজা লিখেছেন, ‘যখন ওর নিষ্পাপ চোখগুলো আমার দিকে তাকিয়ে প্রশ্ন করে “বাবা তুমি মাস্ক পরে দুরে দাড়িয়ে আছো কেন? আমায় তুমি আদর করবে না?”… আমি হেসে ওকে বলি “হ্যা বাবা করবো.. একদিন এই মাস্ক ও খুলবো … আদরও করবো …আসলে করোনা নামক একটা দুষ্টু পোকা আমাদের খারাপ করতে চাইছে… তাইতো এগুলো পরতে হচ্ছে|”.. ও হেসে বলে …”হ্যা বাবা তোমরা পারবে, ততোদিন না হয়  আমি মায়ের সাথে খেলা করি’…..আমরা করব জয়’।

কিছুদিন আগেই পরিবারে নতুন সদস‍্য আসার সুখবর দিয়েছিলেন রাজা। তাঁর ছবিতে দেখা যায় ছেলেকে এক হাত দিয়ে আঁকড়ে ধরে হাসপাতালের বেডে শুয়ে রয়েছেন মধুবনী। রাজা লেখেন, ‘আমাদের কোল আলো করে ভদ্রলোক এলেন। ভালবাসা দেবেন। পুত্রসন্তান হয়েছে। ঈশ্বরকে ধন‍্যবাদ।’

Back to top button